1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

তারা চুপ কেন? প্রশ্ন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার

গাজায় ইসরায়েলি হামলা, মানবাধিকার লঙ্ঘন ও শিশু হত্যার ব্যাপারে পশ্চিমা বিশ্ব এবং বাংলাদেশের মানবাধিকার সংগঠনগুলোর নিরবতার সমালোচনা করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা৷ অবিলম্বে এ হামলা বন্ধের আহ্বানও জানিয়েছেন তিনি৷

শুক্রবার ঢাকায় এক অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, ‘‘প্যালেস্টাইনে ইসরায়েলি আক্রমণে যেভাবে শিশুদের হত্যা করা হচ্ছে – তার প্রতি তীব্র ঘৃণা জানাই, নিন্দা জানাই৷ অবাক হয়ে যাই বিশ্ব বিবেক কীভাবে চুপ করে থাকে৷''

শেখ হাসিনা বলেন, ‘‘এখানে একটা মৃত্যুর ঘটনা ঘটলে কত কংগ্রেসম্যানের চিঠি পাই৷ কত প্রতিবাদ পাই, কত কিছু৷ আর আজকে শত শত শিশুদের গুলি করে মারা হচ্ছে, নারীদের মারা হচ্ছে, অন্তঃসত্ত্বা মহিলাদের মারা হচ্ছে৷ এখন এদের বিবেক নাড়া দেয় না কেন?''

প্রধানমন্ত্রী প্রশ্ন করেন, ‘‘এই যে সভ্য দুনিয়া নিজেদের সভ্য বলে মনে করে, তারা কেন এখন চুপচাপ? আর বাংলাদেশের মানবাধিকার সংগঠনগুলোও কোনো কথা কলছে না৷''

তাই তিনি মানবাধিকার সংগঠনগুলোর ভূমিকার সমালোচনা করে বলেন, ‘‘আমাদের দেশে কত মানবাধিকার সংস্থা, একটু কিছু ঘটনা ঘটলে ছুটে যাচ্ছে৷ কেউ পার্বত্য চট্টগ্রামে ছুটে যাচ্ছে৷ কেউ চর এলাকায় ছুটে যাচ্ছে৷ কেউ এখানে যাচ্ছে৷ কেউ ওখানে যাচ্ছে৷ কই, তাদের কণ্ঠ একেবারে নীরব কেন?''

গাজায় ইসরায়েলি হামলা শুরু হওয়ার পর পরই বাংলাদেশের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এর নিন্দা এবং হামলা বন্ধে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে আহ্বান জানায়৷ এর আগেও প্রধানমন্ত্রী বিবৃতি দিয়ে ইসরায়েলি হামলার নিন্দা জনিয়েছেন৷ আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে ১৪ দল আনুষ্ঠানিকভাবে নিন্দা প্রস্তাব গ্রহণ করে হামলা বন্ধের আহ্বানও জানিয়েছে৷ ১৪ দলের একটি প্রতিনিধি দলেরও প্যালেস্টাইনে যাওয়ার কথা রয়েছে৷

এছাড়া বাংলাদেশের বিরোধী দল বিএনপিসহ সব রাজনৈতিক দলই গাজায় ইসরায়েলি হামলা বন্ধের দাবি জানিয়েছে৷ বিএনপি-র চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়া গাজায় বিবৃতি দিয়ে গাজায় ইসরায়েলি হামলার নিন্দা এবং তা বন্ধের আহ্বান জানিয়েছেন৷ তিনি ফিলিস্তিনি জনগণের জন্য অর্থ সহায়তাও পাঠিয়েছেন৷ এছাড়া বাংলাদেশে প্রতিনিদিনই রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনগুলো প্রতিবাদ সমাবেশ ও মিছিল করছে গাজায় হামলা বন্ধের দাবিতে৷

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্ত্রী বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাত্নু নেসার ৮৪তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষ্যে মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয় আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আরো বলেন, ‘‘একাত্তর সালে আমাদের বাংলাদেশেও তো এভাবে নারীদের নির্যাতন করা হয়েছে, শিশুদের হত্যা করা হয়েছে৷ এত যুগ পড়ে একই চিত্র আমরা দেখতে পাচ্ছি৷''

তিনি বলেন, ‘‘যেখানেই এ ধরনের নির্যাতন চলবে, সেখানেই বাংলার মায়েরা-মেয়েরো প্রতিবাদ করবেন – এটা আমি চাই৷'' তাই আওয়ামী লীগ, এর অঙ্গ সংগঠন এবং নারী সংগঠনগুলোকে গাজায় মানবাধিকার লঙ্ঘনের ব্যাপারে প্রতিবাদী হওয়ার আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী৷

উল্লেখ্য, গত চার সপ্তাহ ধরে গাজা উপত্যকায় ইসরায়েলি বাহিনীর হামলায় এক হাজার ৯শ'রও বেশি মানুষ নিহত হয়েছে৷ এর মধ্যে রয়েছে চার শতাধিক শিশুও৷

নির্বাচিত প্রতিবেদন