1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

ড. ইউনূসের বক্তব্য নিয়ে রাজনৈতিক বিতর্ক

ড. মুহাম্মদ ইউনূসের নিজস্ব গণ্ডির মধ্যে থাকা উচিত বলে মনে করেন আওয়ামী লীগ নেতা সুরঞ্জিত সেনগুপ্ত৷ তাঁর মতে, নির্দলীয় সরকারের পক্ষ নিয়ে তিনি বিএনপির পক্ষেই অবস্থান নিয়েছেন৷ অথচ তাঁর অবস্থান কিন্তু সব সময় একই ছিল৷

গ্রামীণ ব্যাংকের প্রতিষ্ঠাতা শান্তিতে নোবেল জয়ী ড. মুহাম্মদ ইউনূস বৃহস্পতিবার বলেছেন, নির্দলীয় সরকারের অধীন ছাড়া আগামী নির্বাচন শান্তিপূর্ণ হবে না৷ তাঁর এই বক্তব্য নিয়ে রাজনৈতিক বিতর্কে জড়িয়ে পড়েছেন শাসক দল আওয়ামী লীগ এবং বিরোধী দল বিএনপির নেতারা৷

USA - Grameen Bank Muhammad Yunus

ড. ইউনূসের বক্তব্য নিয়ে বিতর্কে জড়িয়ে পড়েছেন শাসক দল আওয়ামী লীগ এবং বিরোধী দল বিএনপির নেতারা

আওয়ামী লীগ নেতা এবং দপ্তরবিহীন মন্ত্রী সুরঞ্জিত সেনগুপ্ত ডয়চে ভেলেকে বলেন, নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন চেয়ে ড. ইউনূস বিএনপির পক্ষেই অবস্থান নিয়েছেন৷ কারণ সরকার সংবিধানের আলোকে অন্তর্বর্তী সরকারের অধীনে আগামী সংসদ নির্বাচন করবে৷ ওদিকে, বিরোধী দল বিএনপি দাবি করছে সংবিধানের বাইরে গিয়ে নির্দলীয় তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন৷ তিনি বলেন, গত নির্বাচন তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে হয়েছিল৷ একটি অগণতান্ত্রিক সরকার দু'বছর ধরে জাতির ওপর জগদ্দল পাথরের মতো চেপে বসেছিল৷ তখন তো তিনি কোনো কথা বলেননি৷

সুরঞ্জিত সেনগুপ্ত বলেন, আগামী নির্বাচন সংবিধান অনুযায়ী হবে এবং তা নির্ধারিত সময়েই হবে৷ তিনি বলেন, ড. ইউনূস একজন সম্মানিত ব্যক্তি৷ তাঁর উচিত নিজের গণ্ডির মধ্যে থাকা, ‘বিতর্কিত' রাজনৈতিক মন্তব্য করা থেকে তাঁর বিরত থাকা উচিত৷

Muhammad Yunus

ড. মুহাম্মদ ইউনূস মনে করেন, নির্দলীয় সরকারের অধীন ছাড়া আগামী নির্বাচন শান্তিপূর্ণ হবে না

অন্যদিকে বিরোধী দল বিএনপির চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা শামসুজ্জামান দুদু ডয়চে ভেলেকে বলেন, ড. ইউনূস কোনো দলের পক্ষে-বিপক্ষে নয়, তিনি গণতন্ত্রের পক্ষে অবস্থান নিয়েছেন৷ তাঁর এই অবস্থান সব সময়ের৷ এখন আওয়ামী লীগ নেতারা ড. ইউনূসের মন্তব্যকে বিএনপির পক্ষে বললেও তিনি যদি ১৯৯৪, ১৯৯৫ সালে এ ধরণের কথা বলতেন তাহলে তা আওয়ামী লীগের পক্ষে যেত৷ কারণ তখন তারা তত্ত্বাবধায়ক সরকারের জন্য আন্দোলন করেছে৷ শেখ হাসিনা এবং আওয়ামী লীগ এখন সেই অবস্থান পরিবর্তন করে দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন করতে চায়৷ তাই আওয়ামী লীগ তাদের অবস্থান পরিবর্তন করেছে, ড. ইউনূস নয়৷

শামসুজ্জামান দুদু বলেন, দেশের ৯০ ভাগ মানুষ এখন তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন চায়৷ এমনকি আওয়ামী লীগের ভিতরেও অনেকে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের পক্ষে৷ যদিও তাঁরা তা প্রকাশ্যে বলতে পারেন না৷ দেশের মানুষ যা চায় সে কথাই বলেছেন ড. ইউনূস৷ তিনি কোনো দলের জন্য কথা বলেননি৷

নির্বাচিত প্রতিবেদন