1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিজ্ঞান পরিবেশ

‘ডিজিটাল মৃত্যু’ বেছে নিলেন নামজাদা তারকারা

ডিজিটাল মৃত্যু!!! ঠিক তাই, ডিজিটালি মারা যাচ্ছেন একের পর এক তারকারা৷ বন্ধ হয়ে আছে তাঁদের ফেসবুক, টুইটার অ্যাকাউন্ট৷ তবে এই মৃত্যু অতীব আনন্দের, অনেক প্রাপ্তির৷ তাই গাগা থেকে শুরু করে কিম সবাই মৃত৷

default

ডিজিটালি মৃত কিম কার্ডাশিয়ান

ভয় পেয়ে গেলেন? এভাবে তারকারা ডিজিটালি মরতে শুরু করলে টুইটারের কি হবে৷ ফেসবুকও যে জৌলুস হারাবে৷ কথা সত্য৷ কেননা এসব তারকাদের সঙ্গে ইন্টারনেটে জুড়ে আছেন লাখো ভক্ত৷ কিন্তু তারপরও কেন এই স্বেচ্ছামৃত্যু?

আসলে অভিনব এক উদ্যোগ নিয়েছেন তারকারা৷ আফ্রিকা এবং ভারতের এইচআইভি সংক্রমিত কিংবা এইডস আক্রান্তদের জন্য অর্থ সংগ্রহ করছেন তাঁরা৷ ডিজিটালি মৃত এই তারকাদের ফিরিয়ে আনতে গেলে এইডস তহবিলে পয়সা দিতে হবে৷ এভাবে একেক তারকার পুর্নজন্মের দাম এক মিলিয়ন মার্কিন ডলার করে৷

Grammy Awards in Los Angeles Lady Gaga Flash-Galerie

লেডি গাগার প্রাণ ফেরাতে চাইলে দিতে হবে এক মিলিয়ন মার্কিন ডলার

এতে কিন্তু কাজ হচ্ছে বেশ৷ লেডি গাগা'র কথাই ধরুন৷ গত সপ্তাহে ডিজিটাল মৃত্যু বেছে নিয়েছেন তিনি৷ ফলে টুইটারে তাঁর লাখ দশেক ভক্ত আর ফেসবুকে তাঁর পাতায় থাকা কয়েক কোটি অনুরাগী, সবাই ‘মিস' করছেন গাগাকে৷ ফলে গাগা ভক্তরা একটি নির্দিষ্ট নম্বরে খুদেবার্তা পাঠিয়ে দিতে শুরু করেছেন ১০ ডলার করে৷ যত জলদি এক মিলিয়নের কোঠা পূরণ হবে, তত জলদি ডিজিটাল দুনিয়ায় আবারো জন্ম নেবেন গাগা৷

তবে এমন মৃত্যু নিয়ে খানিকটা বিব্রত হলিউড তারকা কিম কার্ডাশিয়ান৷ নভেম্বরের ৩০ তারিখ বেশ জানান দিয়ে ডিজিটাল মৃত্যু বেছে নিয়েছিলেন কিম৷ ভক্তদের অনুরোধ জানিয়েছিলেন, যত তাড়াতাড়ি পারো আমাকে আমার প্রাণ ফিরিয়ে দাও৷ কেননা, টুইটার বিনা জীবন আমার অচল৷

মাত্র দশ লাখ মার্কিন ডলার হলেই প্রাণ ফিরে পাবেন কিম কার্ডাশিয়ান৷ কিন্তু ভক্তরা বুঝি কিমকে এত তাড়াতাড়ি ফেরাতে চায় না৷ তাই ডিসেম্বরের পাঁচ তারিখ পর্যন্ত কিম ভক্তরা যোগাড় করেছেন মাত্র তিন লাখ মার্কিন ডলার! স্বভাবতই খানিকটা বেজার কিম৷ প্রাণ যে ফিরছে না তাঁর৷ অথচ টুইটারে তাঁর প্রতীক্ষায় বসে আছে ৫৪ লাখ ভক্ত৷

সে যাই হোক, তারকাদের এই ডিজিটাল মৃত্যু প্রাণ ফেরাতে পারে অনেক এইডস রোগীর৷ তাই লেডি গাগা, অস্টন কুকার, কিম কার্ডাশিয়ান এমনকি সেরেনা উইলিয়ামস- সবাই এখন মৃত৷

প্রতিবেদন: আরাফাতুল ইসলাম

সম্পাদনা: সুপ্রিয় বন্দোপাধ্যায়

ইন্টারনেট লিংক