1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

জাতিসংঘ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে প্রতারণার অভিযোগ

নিউ ইয়র্কে জাতিসংঘের এক কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ভিসা জালিয়াতির মাধ্যমে বাংলাদেশ থেকে একজন গৃহকর্মীকে যুক্তরাষ্ট্রে নেয়া এবং তাঁকে ন্যায্য মজুরি না দেয়ার অভিযোগ এনেছেন মার্কিন কৌঁসুলিরা৷

default

হামিদুর রশীদ

বাংলাদেশ নাগরিক হামিদুর রশীদের বিরুদ্ধে ভিসা জালিয়াতি, বিদেশি কর্মী নিয়োগে জালিয়াতি এবং পরিচয় জালিয়াতির অভিযোগ আনা হয়েছে৷ মঙ্গলবার ম্যানহাটনের কেন্দ্রীয় আদালতে তাঁর বিরুদ্ধে এসব অভিযোগের কথা জানানো হয়৷ পঞ্চাশ বছর বয়সি রশীদ মঙ্গলবার দুপুরের আগে অল্প সময়ের জন্য আদালতে হাজির হন এবং জামিন লাভ করেন৷

সরকারি কৌঁসুলিরা জানান, জাতিসংঘের অর্থনৈতিক এবং সামাজিক বিষয়াদির কার্যালয়ে কর্মরত অর্থনীতিবিদ রশীদ শুরুতে একজন অসনাক্তযোগ্য কর্মীকে সপ্তাহে ৪২০ মার্কিন ডলার বেতন দেয়া হবে এরকম একটি চুক্তিনামা মার্কিন স্টেট ডিপার্টমেন্টে জমা দিয়ে একজন গৃহকর্মী আনার অনুমতি লাভ করেন৷

কিন্তু ২০১৩ সালের জানুয়ারিতে সেই নারী গৃহকর্মীর সঙ্গে আরেকটি চুক্তি করেন তিনি, যেখানে তাঁকে সপ্তাহে ২৯০ মার্কিন ডলার দেয়া হবে বলে উল্লেখ করা হয়৷ পরবর্তীতে রশীদ সেই নারীর পাসপোর্ট নিয়ে যান এবং তাঁকে বেতন দেয়ার বদলে তাঁর স্বামীকে বাংলাদেশে মাসে ৬০০ মার্কিন ডলারের মতো পাঠাতে থাকেন বলে অভিযোগে উল্লেখ করা হয়৷

তবে ২০১৩ সালের অক্টোবরে সেই নারীকে ৬০০ মার্কিন ডলার বেতন দিয়েছিলেন রশীদ৷ এবং সেই মাসের শেষের দিকে গৃহকর্মীকে তাঁকে ছেড়ে চলে যান৷

কৌঁসুলিরা দাবি করেন, রশীদের জন্য কাজ করার সময় সপ্তাহে চল্লিশ ঘণ্টার বদলে আরো অনেক বেশি সময় কাজ করেছেন সেই গৃহকর্মী৷ রশীদের বিরুদ্ধে পরিচয় গোপনের মাধ্যমে একটি নকল ব্যাংক অ্যাকাউন্ট চালুরও অভিযোগ আনা হয়েছে, যেটি তিনি জাতিসংঘে দেখিয়ে প্রমাণের চেষ্টা করেছিলেন যে, গৃহকর্মীকে ন্যায্য মজুরি দেয়া হচ্ছে৷

হামিদুর রশীদ অবশ্য এই বিষয়ে কোনো মন্তব্য করেননি৷ তবে জাতিসংঘের এক মুখপাত্র জানিয়েছেন, তাঁর বিরুদ্ধে অভিযোগের বিষয়ে জাতিসংঘ অবগত আছে এবং ব্যক্তিগত ক্ষেত্রে যেসব আইনি বিষয়াদি পালনের ব্যাপার আছে, সে সম্পর্কে জাতিসংঘের কর্মকর্তারা সচেতন থাকবে, এমনটাই প্রত্যাশা করে বিশ্ব সংস্থাটি৷

এআই/এসিবি (রয়টার্স)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়