1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

পাঠক ভাবনা

‘চিন্তা করবেন না, তাঁরা বেলজিয়ামের কাছে হারবে'

ডয়চে ভেলে বাংলার ফেসবুক পাতায় এই মন্তব্য করেছেন ফরিদুল ইসলাম৷ আর্জেন্টিনার লিওনেল মেসি ও আনহেল ডি মারিয়াকে নিয়ে করা একটি প্রতিবেদন ফেসবুকে শেয়ার করা হলে সেখানে এই মন্তব্য করেন তিনি৷

ডয়চে ভেলে প্রতিদিনই ব্রাজিল বিশ্বকাপ নিয়ে প্রতিবেদন ও ছবিঘর প্রকাশ করছে৷ সেগুলো ফেসবুকে প্রকাশ করার পর পাঠকরা সেখানে নানান মন্তব্য করছেন৷ যেমন ‘ফুটবলারদের হেয়ারস্টাইল' শীর্ষক ছবিঘরের নীচে তপন বারুই লিখেছেন তাঁর প্রিয় ফুটবলার ছিলেন ব্রাজিলের রোনাল্ডো৷ তাঁকে (রোনাল্ডোকে) তিনি বিশ্বের সেরা ফুটবলার বলেও আখ্যায়িত করেছেন৷

এদিকে ‘‘আর্জেন্টিনার খবর আছে!'' শীর্ষক ব্লগওয়াচ পড়ে খালিদ হাসান অপি আর্জেন্টনার একটি পতাকা আপলোড করে লিখেছেন, ‘‘আর্জেন্টিনা জিতবে ইনশাআল্লাহ৷'' তবে আনিকা আক্তার মিম এর ধারণা বেলজিয়ামের সঙ্গে কোয়ার্টার ফাইনালের খেলায় হারবে আর্জেন্টিনা৷ মিম-এর মন্তব্যের প্রতিক্রিয়ায় ওয়াকিল হোসাইন শুধু লিখেছেন, ‘‘সময়েই বলে দিবে৷''

শাওন হোসেন লিখেছেন, ‘‘বিশ্বাস করেন আর না করেন আর্জেন্টিনার খেলা খারাপ হয়ে গেছে৷''

প্রসঙ্গ প্রশ্নপত্র ফাঁস

ভবিষ্যতে পাবলিক পরীক্ষার সময়সূচিতে সরকারি ছুটির দিন ছাড়া কোনো বিরতি রাখা হবে না বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ৷ প্রশ্নপত্র ফাঁস ঠেকাতে এই ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে৷ তিনি পরীক্ষা পদ্ধতি পরিবর্তনের কথাও জানিয়েছেন৷

ডয়চে ভেলের ঢাকা প্রতিনিধির পাঠানো এই প্রতিবেদন পড়ে আয়ার মুহাম্মদ লিখেছেন, ‘‘পরোক্ষভাবে তেনারা মেনে নিলেন প্রশ্নপত্র ফাঁসের অভিযোগ!!'' রাজীব কুমার মণ্ডল মনে করছেন, এর ফলে শিক্ষার্থীদের উপর মানসিক চাপ বৃদ্ধি পাবে৷ তাই এ পদ্ধতি গ্রহণযোগ্য নয় বলে মন্তব্য করেছেন তিনি৷

রেহানা শ্রাবন্তী রানি লিখেছেন, ‘‘এ একটা দুষ্টচক্র৷ কেউ ফাঁস করে, কেউ নেয় তাদের প্রয়োজনে৷ দুর্বল মেধার শিক্ষার্থীদের এভাবে প্রভাবিত করে এই চক্র৷ এটা যে শিক্ষার্থীদের জন্যই লজ্জার বিষয়, এই বোধ তাদের নেই৷ যেদিন হলে সেদিন আর এটা হবে না৷''

সংকলন: জাহিদুল হক

সম্পাদনা: সঞ্জীব বর্মন

নির্বাচিত প্রতিবেদন