1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিজ্ঞান পরিবেশ

চলুন, বাংলা উইকিপিডিয়াকে সমৃদ্ধ করি

ইন্টারনেটে কেউ তথ্য খুঁজছেন, কিন্তু উইকিপিডিয়া ব্যবহার করেন নি – এমন লোক হয়তো কমই পাওয়া যাবে৷ কিন্তু ১০ বছর আগে যখন উইকিপিডিয়ার জন্ম হয়েছিল তখন তাকে অনেকে ‘পাগলামি’ বলেছিলেন৷

default

জার্মান উইকিপিডিয়ার লোগো

এমনকি এর প্রতিষ্ঠাতাও কল্পনা করতে পারেন নি আজকের এই সাফল্য৷

জিমি ওয়ালেস৷ আজ থেকে প্রায় দশ বছর আগে জন্ম দিয়েছিলেন উইকিপিডিয়ার৷ তখন তিনি স্বপ্নেও ভাবেন নি যে, এটা একদিন উল্লেখযোগ্য ওয়েবসাইটে পরিণত হবে৷

কিছু পরিসংখ্যান দিচ্ছি৷ ইন্টারনেট নিয়ে গবেষণা করে মার্কিন কোম্পানি কমস্কোর৷ তাদের সাম্প্রতিক এক জরিপে বলা হয়েছে, বিশ্বে সবচেয়ে বেশি ব্যবহৃত হয় এমন ওয়েবসাইটের মধ্যে উইকিপিডিয়ার অবস্থান পাঁচ নম্বরে৷ আর ‘পিউ' নামে যুক্তরাষ্ট্রের একটি শীর্ষস্থানীয় গবেষণা প্রতিষ্ঠান বলছে, ইন্টারনেট ব্যবহারকারী প্রতি দুজন অ্যামেরিকানের একজন উইকিপিডিয়া ব্যবহার করে থাকেন৷

কিন্তু কী এই উইকিপিডিয়া? সহজ কথায় এটি একটি এনসাইক্লোপেডিয়া বা বিশ্বকোষ৷ অর্থাৎ জগতের মোটামুটি সবকিছু সম্পর্কেই তথ্য রয়েছে সেখানে৷

আমরা অনেকেই ‘এনসাইক্লোপেডিয়া-ব্রিটানিকা' সম্পর্কে জানি৷ যেটাকে সর্বজন বিদিত বিশ্বকোষ বলে ধরা হয়৷ এর সঙ্গে উইকিপিডিয়ার পার্থক্য হচ্ছে, ব্রিটানিকা পাওয়া যায় বই আকারে৷ আর উইকিপিডিয়া অনলাইনে৷ তবে সবচেয়ে বড় পার্থক্যটি হলো, যে কেউ এই বিশ্বকোষে লিখতে বা লেখা সম্পাদনা করতে পারে৷ এমনকি আপনিও!

আর এখানেই অনেকের আপত্তি৷ তাদের ধারণা, যেহেতু যে কেউ লেখা পরিবর্তন করতে পারে তাই সেখানকার তথ্যগুলো সঠিক না হবারই কথা৷ এই দলের একজন হলেন বাংলাদেশের তথ্য প্রযুক্তি বিষয়ক সাংবাদিক এডওয়ার্ড অপূর্ব সিংহ৷ তিনি বলছেন, ‘‘উইকিপিডিয়া থেকে সংগ্রহ করা তথ্যগুলো সব ঠিক কি না, সেটা নিয়ে সবসময় আমার মনে সন্দেহ থাকে৷''

কিন্তু এডওয়ার্ডের মত ব্যবহারকারীদের আশ্বস্ত করার মত তথ্য দিয়েছে ‘নেচার' নামের একটি বিখ্যাত ম্যাগাজিন৷ তারা ২০০৬ সালে এ বিষয়ে একটি জরিপ করেছিল৷ সেসময় তারা দেখতে পান উইকিপিডিয়ার তথ্যগুলোর মান ‘আশ্চর্যজনকভাবে ভাল' অর্থাৎ বেশিরভাগই নির্ভুল৷ এছাড়া এনসাইক্লোপেডিয়া-ব্রিটানিকা'তে যত ভুল রয়েছে, তার চেয়ে উইকিপিডিয়ায় ভুলের সংখ্যা খুব বেশি নয়৷

এডওয়ার্ডকে জিজ্ঞাসা করেছিলাম কেন তিনি উইকিপিডিয়া ব্যবহার করেন৷ তিনি বললেন, ‘‘দৈনন্দিন কাজে বিভিন্ন তথ্য পাবার জন্য আমি উইকিপিডিয়া ব্যবহার করি৷ উইকিপিডিয়ার সবচেয়ে বড় গুণ হচ্ছে, সেখানে সবকিছুর একটা সুন্দর বর্ণনা পাওয়া যায়৷ যেটা একটা অনন্য ব্যাপার৷''

উইকিপিডিয়া থেকে যে শুধু ইংরেজিতে তথ্য পাওয়া যায় তা নয়৷ বিশ্বের মোট ২৭৬টি ভাষায় তথ্য পাওয়া যায়৷ এর মধ্যে বাংলাও রয়েছে৷ যদিও এখন পর্যন্ত সেখানে নিবন্ধের সংখ্যা খুব বেশি নয়৷ তবে ধীরে ধীরে এটা সমৃদ্ধ হচ্ছে৷ একদল তরুণ নিয়মিত সেখানে লেখা লিখে যাচ্ছেন৷ কিন্তু এজন্য কিন্তু তারা কোনো টাকা পাচ্ছেন না! শুধুমাত্র ভাল লাগা থেকেই নিজের ইচ্ছা অনুযায়ী তারা কাজটি করে যাচ্ছেন! এদেরকে বলা হয় ‘উইকিপিডিয়ান'৷

এমনই এক উইকিপিডিয়ান বেলায়েত হোসেনের কাছে জানতে চেয়েছিলাম, কেন তারা এ কষ্টটা করছেন৷ তিনি বললেন, ‘‘প্রথমে ভাল লাগা থেকে উইকিপিডিয়ায় লেখা শুরু করি৷ পরে যখন দেখলাম আমার লেখা অনেকে পড়ছেন, তখন আরও বেশি করে লেখার প্রতি আগ্রহ আসে আমার৷ এছাড়া বায়ান্নর ভাষা আন্দোলন আমাকে বিশেষভাবে অনুপ্রাণিত করেছে৷ কারণ ভাষার জন্য আমরা যুদ্ধ করলেও বর্তমানে ডিজিটাল মাধ্যমে বাংলা ভাষা সংকটাপন্ন৷ এছাড়া আগে ইন্টারনেটে যখন কোনো তথ্য খুঁজতাম, বাংলায় সেটা পেতাম না৷ এই বিষয়টি আমাকে বেশ পীড়া দিত৷ তাই আমি এখন চেষ্টা করে যাচ্ছি বাংলা নিয়ে কিছু একটা করার৷''

বেলায়েতের মত আপনিও পারেন বাংলা উইকিপিডিয়াকে সমৃদ্ধ করতে৷ একবার চেষ্টা করেই দেখুন না!

প্রতিবেদন: জাহিদুল হক

সম্পাদনা: সঞ্জীব বর্মন