1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

চলতি মাসের শেষেই সর্বদলীয় সরকার

সর্বদলীয় সরকার গঠনের লক্ষ্যে মন্ত্রীরা পদত্যাগ পত্র জমা দেয়া শুরু করেছেন৷ ৫২ সদস্যের মন্ত্রিসভার প্রায় সকলেই চলতি মাসের মধ্যেই পদত্যাগ পত্র জমা দেবেন৷ আর নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার সঙ্গে সঙ্গেই কাজ শুরু করবে সর্বদলীয় সরকার৷

দপ্তরবিহীনমন্ত্রী সুরঞ্জিত সেনগুপ্ত এমপি ডয়চে ভেলেকে জানান, তিনি নিজে পদত্যাগ করবেন শনিবার৷ এর আগে যোগাযোগমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের রবিবার পদত্যাগ পত্র জমা দেবেন বলে খবর৷ তিনি আরো জানান যে, সোমবারের মধ্যে মন্ত্রিসভার মন্ত্রী, প্রতিমন্ত্রী সবারই প্রধানমন্ত্রীর কাছে পদত্যাগ পত্র জমা দেয়ার কথা৷ জানা গেছে, কোনো কোনো মন্ত্রী এরই মধ্যে প্রধানমন্ত্রীর কাছে পদত্যাগ পত্র জমা দিয়েছেন৷ তাঁদের মধ্যে একজন হলেন মক্তিযুদ্ধ বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী এ বি তাজুল ইসলাম৷

সুরঞ্জিত সেনগুপ্ত জানান, সোমবারের মধ্যে না হলেও চলতি মাসের ১৫ তারিখের আগেই মন্ত্রীরা পদত্যাগ পত্র জমা দেবেন৷ সর্বদলীয় সরকার গঠনের লক্ষ্যেই মন্ত্রীদের পদত্যাগ পত্র নেয়া হচ্ছে৷ এর মধ্যে যাঁরা সর্বদলীয় সরকারে থাকবেন, তাঁদের পদত্যাগ পত্র গ্রহণ করা হবে না৷ তিনি জানান, নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার সঙ্গে সঙ্গেই সর্বদলীয় সরকার কাজ শুরু করবে৷ তাই সর্বদলীয় সরকার গঠনের পুরো প্রক্রিয়া আগেই শেষ হবে৷ সেক্ষেত্রে নভেম্বের মাসের শেষ সপ্তাহে যদি নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করা হয়, তাহলে সর্বদলীয় সরকারও তখনই হবে৷

সুরঞ্জিত সেনগুপ্ত ডয়চে ভেলের এক প্রশ্নের জবাবে বলেন, বিরোধী দল চাইলে হরতাল বাদ দিয়ে এখনো আলোচনায় আসতে পারে৷ এছাড়া, তারা সর্বদলীয় সরকারে যোগ দিতে চাইলে নামও পাঠাতে পারে৷ তাদের জন্য দরজা সব সময়ই খোলা আছে৷ কিন্তু নির্বাচন যথা সময়ে, সংবিধানের অধীনেই হবে৷

ওদিকে প্রধানমন্ত্রীর ছ'জন উপদেষ্টা কখন পদত্যাগ করবেন সে বিষয়ে কিছু জানা যায়নি৷ তবে প্রধানমন্ত্রী যখন বলবেন, তখনই তাঁরা পদত্যাগে প্রস্তুত আছেন বলে প্রকাশ৷

অন্যদিকে আওয়ামী লীগ নির্বাচনের প্রস্তুতি পুরোমাত্রায় শুরু করে দিয়েছে৷ ১০ই নভেম্বর থেকে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন ফর্ম বিক্রি শুরু হবে৷ এবার প্রতিটি ফর্মের দাম ধরা হয়েছে ২৫ হাজার টাকা৷ সচিবরাও নির্বাচনের প্রস্তুতি নিচ্ছেন৷ বৃহস্পতিবার সচিবদের এক বৈঠকে আগামী নির্বাচনের প্রস্তুতি এবং নির্বাচন কমিশনকে সহায়তার বিষয়ে আলোচনা করা হয়েছে

নির্বাচিত প্রতিবেদন