1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

চলতি মাসেই গার্মেন্টস শিল্পের জন্য ন্যূনতম মজুরি কাঠামো

গার্মেন্টস শ্রমিকদের স্বার্থকে গুরুত্ব দিয়ে চলতি মাসেই ঘোষণা করা হবে মজুরি কাঠামো৷ শ্রমিক-মালিক সবার কাছেই এটা গ্রহণযোগ্য হবে, বলে জানিয়েছেন মজুরি কমিশনের চেয়ারম্যান বিচারপতি ইকতেদার আহমেদ৷

default

গার্মেন্টস শ্রমিকদের এখন সবচেয়ে বড় দাবি ন্যূনতম মজুরি ৫ হাজার টাকা৷ ১৯৮৪ সালে এই শিল্পের শ্রমিকদের জন্য ন্যূনতম মজুরি নির্ধারণ করা হয় ৬২৭ টাকা৷ সর্বশেষ ২০০৬ সালে মজুরি নির্ধারণ হয় ১,৬৬২ টাকা৷ প্রতি ৫ বছর পর এই মজুরি কাঠামো পরিবর্তন করার কথা৷

শ্রমিকদের দৈনিক কত ক্যালরি শক্তি ক্ষয় হয় এবং তা পূরণে কি পরিমাণ খাবার প্রয়োজন তা বিবেচনা করে নির্ধারণ করা হবে এবারের মজুরি কাঠামো৷ এর সঙ্গে বিবেচনা করা হবে বর্তমান বাজার দর আর ঘর ভাড়া, জানালেন মজুরি কমিশনের চেয়ারম্যান৷ তিনি বলেন, চলতি মাসেই ঘোষণা করা হবে ন্যূনতম মজুরি কাঠামো৷ এক্ষেত্রে বিবেচনা করা হবে শ্রমিকদের কাজের ধরণ ও ঝুঁকি৷

এর আগে কমিশন চিংড়ি শিল্পের শ্রমিকদের ন্যূনতম মজুরি নির্ধারণ করে ২,৬০০ টাকা৷ আর জাহাজ শিল্পের শ্রমিকদের জন্য নির্ধারণ করা হয় ৬,২০০ টাকা৷ দেড় বছরে এই কমিটি ১৬টি সেক্টরের জন্য আলাদা মজুরি কাঠামো নির্ধারণ করেছে৷ তৈরি পোষাক শিল্পে ন্যূনতম মজুরির ক্ষেত্রে বিশ্বের বাজারে প্রতিযোগিতা ও দক্ষতা বিবেচনায় রাখা হবে৷

গার্মেন্টস শিল্পে সংঘাত প্রসঙ্গে তিনি বলেন, এর পিছনে ৩টি কারণ রয়েছে৷ এগুলো হলো কম মজুরি, ঠিক সময়ে বেতন না দেয়া এবং নিয়োগ পত্র না থাকা৷

প্রতিবেদন: হারুন উর রশীদ স্বপন, ঢাকা

সম্পাদনা: জাহিদুল হক

সংশ্লিষ্ট বিষয়