1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

গোলাম আযমের রায়ে সন্তুষ্ট নয় সাধারণ জনতা

একাত্তরের যুদ্ধাপরাধের দায়ে গোলাম আযমকে দেওয়া ৯০ বছরের কারাদণ্ডের আদেশে সন্তুষ্ট নয় সাধারণ জনতা৷ ব্লগ, ফেসবুকে এই বিষয়ে ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন অনেকে৷

জনপ্রিয় কমিউটিনিটি বাংলা ব্লগ সামহয়্যার ইন ব্লগে ব্লগার তুহিন সরকার লিখেছেন, ‘‘এটি হতাশাব্যঞ্জক দ্বিতীয় রায়৷ তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় গণজাগরণ মঞ্চ এ রায় প্রত্যাখান করে৷'' একই বিষয়ে আমার ব্লগে সাইফ সারোয়ারের লেখার শিরোনাম, ‘‘চুদুর বুদুর বিচার মানিনা''৷ এই ব্লগার গোলাম আযমের বিরুদ্ধে দেওয়া রায়কে ‘‘প্রহসনের বিচার'' আখ্যা দিয়েছে তার ফাঁসি দাবি করেছেন৷

ফেসবুকে এই বিষয়ে মন্তব্য করেছেন অসংখ্য মানুষ৷ ক্ষমতাসীন দলের সংসদ সদস্য গোলাম মওলা রনি লিখেছেন, ‘‘আমরা ৭০-এর দশক থেকেই গোলাম আজমের ফাঁসির দাবি শুনে আসছি আর তখন দেশবাসী সাঈদী বা কাদের মোল্লার নামও জানতো না৷ এই রায়ের পর নিশ্চিন্তে বলা যায় সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর কি হবে৷ কারণ সাফাই সাক্ষী দিবেন সালমান এফ. রহমান৷''

সাংবাদিক গোলাম মোর্তোজা ফেসবুকে লিখেছেন, ‘‘প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা গওহর রিজভীর সঙ্গে মার্কিন রাষ্ট্রদূতের বাসায় জামায়াত নেতা ব্যারিস্টার আবদুর রাজ্জাকের আঁতাতের ফলাফল এই রায়৷'' লন্ডনে অবস্থানরত ব্লগার নিঝুম মজুমদারও একই দিকে ইঙ্গিত করেছেন৷ তিনি লিখেছেন, ‘‘আরেকবার শাহবাগ জাগবে তারপর সেই রেশ ধরে লক্ষ লক্ষ লোক সেখানে যাবে এবং সরকারের জনপ্রিয়তা বাড়বে৷ এই তো প্ল্যান? নাকি মার্কিন অ্যাম্বাসেডরের বাসার মিটিং-এর ফলাফল এটা? নাকি মীর কাশিম টাকার গুদাম খুলে দিয়েছে? কোনটা? যেটাই হোক না কেন, কাজটা ভালো হোলো না৷''

এদিকে, এই রায় প্রত্যাখ্যান করে সবাইকে শাহবাগে সমবেত হওয়ার আহ্বান জানিয়েছে গণজাগরণ মঞ্চ৷ যুদ্ধাপরাধীদের সর্বোচ্চ শাস্তির দাবিতে আন্দোলনরত এই গোষ্ঠী তাদের ফেসবুক পাতায় লিখেছে, ‘‘সবাই শাহবাগ আসেন৷ ৩০ লক্ষ শহিদের রক্তের ঋণ দরকার হইলে তিন কোটি মানুষ জীবন দিয়ে শুধবো৷'' আল-আমিন কবির এই বিষয়ে লিখেছেন, ‘‘বন্ধুরা ফেইসবুকে পোস্ট দিয়ে শাহবাগে যাওয়ার আহ্বান জানাইতেছে৷ প্রশ্ন হচ্ছে, কেন শাহবাগে যাবো? কাদের কাছে বিচার‬ চাইতে যাবো?''

ডয়চে ভেলের ফেসবুক পাতায় অমিত ইমতিয়াজ এই বিষয়ে লিখেছেন, ‘‘পাঁচটি মামলায় ৯০ বছরের জেল৷ ওনার নয় মাসও জেলে থাকতে হবে না৷ বিএনপি ক্ষমতায় আসলে ৯০ দিনের আগেই ছাড়া পাবে৷ এই রায় মেনে নেওয়া যায় না৷''

তবে আব্দুল্লাহ আল কাফি নামক এক ব্যক্তি ফেসবুকে লিখেছেন, ‘‘প্রজন্মের পর প্রজন্মকে শেখানো হতো গোলাম আযম একজন রাজাকার৷ আজকের রায়ের মাধ্যমে আদালত নিজে মুখে স্বীকার করেছে, গোলাম আযম ৭১-এ প্রত্যক্ষ কিংবা পরোক্ষভাবে কোনো অপরাধের সাথে জড়িত নয়৷ রায় যাই হোক না কেনো আদালত নিজে সাক্ষ দিয়েছে গোলাম আযম যুদ্ধাপরাধী/রাজাকার নয়৷''

উল্লেখ্য, ঢাকার বিতর্কিত আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-১ সোমবার জামায়াতে ইসলামীর সাবেক আমির গোলাম আযমকে বিভিন্ন অপরাধে মোট ৯০ বছরের কারাদণ্ড দিয়েছে৷ এই রায়ের বিরুদ্ধে আপিলের ঘোষণা দিয়েছেন গোলাম আযমের আইনজীবী ব্যারিস্টার আব্দুর রাজ্জাক৷

সংকলন: আরাফাতুল ইসলাম

সম্পাদনা: দেবারতি গুহ

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়