1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

খেলাধুলা

ক্রিকেট জুয়ার নেটওয়ার্ক ধরতে ভিডিওর সহায়তা নিচ্ছে আইসিসি

ক্রিকেটকে ইংরেজিতে অনেকেই একটু বাঁকা চোখে বলেন ‘ইটস আ বেটিং গেম’৷ অর্থাৎ বাজির খেলা বা বাজিকরের খেলা ক্রিকেট! আসলেই কী তাই? উত্তরটা কিন্তু এতো সহজ নয়৷

ICC-Logo 2011

২০১১ সালে অনুষ্ঠিত বিশ্বকাপের লোগো

তবুও ক্রিকেটকে নিয়ে মাঝে মধ্যে নানা নাটকের পর বুঝতে আর বাকি নেই যে, এই খেলার সঙ্গে ‘বুকি' বা বাজিকরদের সম্পর্ক বেশ নিবিড়! কিন্তু প্রমাণ কোথায়? তাই এবার, এর প্রমাণ বের করতেই ব্যস্ত আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিল বা আইসিসি৷ তাদের একটি বিশেষ দল ইতিমধ্যেই নাকি এই কাজে মাঠে নেমে পড়েছে৷ আর সেই কাজে প্রথমেই তাদের টার্গেট ভারতীয় বাজিকরদের নেটওয়ার্ক৷

ভারতের ‘স্পোর্টস ইলাস্ট্রেটেড ইন্ডিয়া' নামের একটি ম্যাগাজিন সম্প্রতি অবৈধ বাজিকরদের নিয়ে একটি ভিডিও চিত্রমালা নির্মান করে৷ বাজিকর নেটওয়ার্কের নানা প্রামাণ্য দলিল এবং কথাবার্তা নিয়ে প্রকাশ করা এই ভিডিওটির দৈর্ঘ্য ৪০০ মিনিট৷ সেখানে বিভিন্ন সময়ে পরিচালিত পুলিশের অভিযান ছাড়াও বেশ কিছু লোককে দেখানো হয়েছে, যারা ক্রিকেট জুয়ার সঙ্গে ওতোপ্রোতভাবে জড়িত৷

Sachin Tendulkar, ICC

বাজিকরদের নেটওয়ার্ক কলঙ্কিত করতে পারে ভারতকে

আইসিসি ঐ ভিডিও এবং তার কাঁচা ফিল্ম (যা ব্যবহার করা হয়নি বা যা সম্পাদনার পর কেটে ফেলা হয়েছে) তা সংগ্রহ করছেন৷ আইসিসি বলছে, ভারতীয় বুকিদের নেটওয়ার্ক অনুসন্ধানে এগুলো খুবই সহায়তা করবে৷

ঐ ভিডিওতে দেখানো হয়েছে এক বাজিকরকে৷ যে একজন আন্তর্জাতিক ক্রিকেটারের সঙ্গে ম্যাচ ফিক্সিং'এর ব্যাপারে নানা বিষয় নিয়ে দেন দরবার করছেন৷ এখানেই শেষ নয়৷ ভিডিওতে বাজিকর আন্তর্জাতিক ঐ ক্রিকেটারের সঙ্গে আরও একটি ম্যাচ ফিক্সিং'এ সমঝোতায় আসার ব্যাপারে আলোচনা করছেন বলেও প্রমাণ রয়েছে৷ এছাড়া, একজন নামী ক্রিকেটারকে বাজিকররা খুব সহজেই কিভাবে কব্জা করে ফেলেন, তাও দেখানো হয়েছে এই অনুসন্ধানী ভিডিওটিতে৷ আর পুলিশের সঙ্গে ক্রিকেটার, ক্রিকেটারের সঙ্গে বাজিকরের এবং বাজিকরের সঙ্গে পুলিশের যোগাযোগ, কথাবার্তা যেভাবে দেখানো হয়েছে - তাতে ক্রিকেট ম্যাচ-ফিক্সিংয়ের তদন্তে নতুন মাত্রা যোগ হবে বলেই আশা করা যাচ্ছে৷ প্রায় ছয় মাস ধরে ঐ ম্যাগাজিনের সাংবাদিকরা অনুসন্ধান করে এই ভিডিওটি বানিয়েছেন বলে জানা গেছে৷ আইসিসি বলছে, ঐ ভিডিওটি ক্রিকেট বুকিদের শনাক্ত করতে সহায়তা করবে৷

প্রতিবেদন: সাগর সরওয়ার

সম্পাদনা: দেবারতি গুহ