1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

‘কোন জনগোষ্ঠীর জন্য ঝুঁকি নিয়ে লেখালেখি করছি?'

বাংলাদেশ থেকে এক তরুণ আইএস-এ যোগ দিতে তুরস্কে গিয়েছেন – এই খবরে সবাই খানিকটা বিস্মিত৷ ফেসবুকে একজন খুব হতাশা নিয়ে লিখেছেন, ‘‘কোন জনগোষ্ঠীর জন্য জীবনের ঝুঁকি নিয়ে আমরা লেখালেখি করছি?''

রাফি শামস লিখেছেন এই কথা৷ দৈনিক প্রথম আলোর একটি খবর নিজের ফেসবুক অ্যাকাউন্টে শেয়ার করে তিনি লিখেছেন, ‘‘এমআইএসটি-তে ইঞ্জিনিয়ারিং পড়া একজন ছাত্র যখন আইএস এর মতো জঙ্গি সংগঠনে যোগ দিতে যায় তখন নিজেকে খুব বোকা বোকা লাগে৷ বোকা বোকা লাগে এই ভেবে যে কেন এবং ঠিক কোন জনগোষ্ঠীর জন্য জীবনের ঝুঁকি নিয়ে আমরা লেখালেখি করছি? বৃথাই ঝুঁকির মধ্য দিয়ে দিন যাপন করছি? দম বন্ধ করে পড়ে থাকা ছাড়া আর কিছুই করার নেই... চলছে... চলুক... হয়তো কোন দিন... হয়তো...''

রাফি শামস ভবিষ্যৎ সম্পর্কে উদ্বেগ এবং অনিশ্চয়তাজনিত দুশ্চিন্তা প্রকাশ করেছেন অসমাপ্ত বাক্যে৷ সমাজের মেধাবী তরুণ, যে কিনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ে পড়াশোনা করছে, তাঁকে জঙ্গি তৎপরতায় যুক্ত হতে দেখেই রাফি অবাক৷ তবে কারো আইএস-এ যোগ দিতে যাওয়ার কথা নতুন হলেও, কেউ কেউ বহুকাল শুধু ‘মাদ্রাসায় জঙ্গি বানানো হয়' বলে এলেও কথাটা যে ভুল তা এর আগেও বেশ কিছু ঘটনায় তা দেখা গেছে৷ শহরের বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদেরও বিভিন্ন জঙ্গি সংগঠনের সঙ্গে জড়িত হওয়ার খবর এর আগেও অনেকবারই সংবাদ মাধ্যমে এসেছে৷

সংকলন: আশীষ চক্রবর্ত্তী

সম্পাদনা: সঞ্জীব বর্মন

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়