1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

কুন্দুস পুনর্দখলের পথে আফগান সেনাবাহিনী

কুন্দুসের প্রধান এলাকাগুলি আবারো তাদের দখলে বলে দাবি করেছে আফগানিস্তানের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়৷ জঙ্গি গোষ্ঠী তালেবানকে হটিয়ে প্রথমে পুলিশ সদর দপ্তর, তারপর কারাগার এবং এবার, কুন্দুসের বেশ কিছু এলাকা পুনর্দখল করেছে তারা৷

আফগান স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র সেদিক সিদ্দিকি একটি টুইটার বার্তায় জানিয়েছে, ‘‘কুন্দুস আবারো আমাদের দখলে৷ সেখানে আর কোনো জঙ্গি, শত্রুপক্ষের চিহ্ন নেই৷''

তালেবান অবশ্য এমন দাবিকে পুরোপুরি অস্বীকার করেছে৷ তাছাড়া গত দু'দিন ধরে চলা রাতভর যুদ্ধের সঠিক কোনো বর্ণনাও পাওয়া যাচ্ছে না৷ তবে কুন্দুসের গভর্নর হামদুল্লাহ দানিশি বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে জানিয়েছেন যে, খুব তাড়াতাড়ি গোটা শহরটা তাদের দখলে চলে আসবে৷ দানিশির কথায়, ‘‘আমরা ইতিমধ্যেই কুন্দুস শহরের বেশ কিছু এলাকা পুনর্দখল করেছি৷ তালেবান আমাদের হামলায় বিপর্যস্ত এবং তাদের অধিকাংশই পলাতক৷''

জঙ্গি গোষ্ঠী তালিবান যেভাবে হঠাৎ করে কুন্দুস দখল করে নেয়, তা আফগান প্রেসিডেন্ট আশরাফ গনির জন্য চরম বিব্রতকর অবস্থার সৃষ্টি করেছিল৷ তাই তাদের হটিয়ে শহরসহ গোটা প্রদেশটি পুনর্দখলের জন্য জোরালো চেষ্টা শুরু করে আফগান সরকার৷ কুন্দুস ফিরিয়ে আনার এ লড়াইয়ে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র আফগানিস্তানকে সহায়তা করছিল৷ গত দু'দিন ধরে তালেবানের অবস্থান লক্ষ্য করে সেখানে একটানা হামলা চালায় মার্কিন জঙ্গি বিমান৷

প্রেসিডেন্ট গনি জানান, বিদ্রোহীরা শহরের বেসামরিক নাগরিকদের মানব বর্ম হিসেবে ব্যবহার করছে৷ তাঁর কথায়, আফগানিস্তান এখনও তালিবানের সঙ্গে শান্তি আলোচনায় বসতে রাজি, কিন্তু তাদের আগে নিরীহ মানুষ হত্যা বন্ধ করতে হবে৷ বলা বাহুল্য, ২০০১ সালে যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বে আফগানিস্তান অভিযান শুরু হওয়ার পর তালিবান এই প্রথম কোনো প্রাদেশিক রাজধানী দখল করতে সক্ষম হয়েছে৷

ডিজি/এসবি (এপি, এএফপি. রয়টার্স)

নির্বাচিত প্রতিবেদন