1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিজ্ঞান পরিবেশ

কিছু কর্মক্ষেত্রও ফুসফুসের ক্যান্সারের জন্য দায়ি

আমরা সবাই জানি ফুসফুসের ক্যান্সারের জন্য ধূমপান দায়ি৷ তবে কিছু কিছু পেশার মানুষ যে তাদের কর্মক্ষেত্রের জন্য এই ক্যান্সারে আক্রান্ত হতে পারেন তা বোধ হয় আমরা এখনো জানিনা৷

default

ইটের ভাটায় কাজ করা ফুসফুসের ক্যান্সারের জন্য ঝুঁকিপূর্ণ

সম্প্রতি ইতালির কয়েকজন বিজ্ঞানী গবেষণা চালিয়ে বলেছেন, পুরুষদের ফুসফুসের ক্যান্সারের জন্য শতকরা পাঁচ ভাগ ক্ষেত্রে তাদের কর্মই দায়ি৷

তাঁরা বলছেন, কয়েকটি পেশার মানুষ এই ধরণের ঝুঁকির মধ্যে রয়েছে৷ যেমন ইটের ভাটা, সিরামিক কারখানা ও মৃৎশিল্পে যারা নিয়োজিত রয়েছেন তাদের ফুসফুসের ক্যান্সারে আক্রান্ত হবার সম্ভাবনা সবচেয়ে বেশি বলে জানা গেছে৷ এছাড়া ওয়েল্ডিং কারখানা, ট্যানারি, নির্মাণ শ্রমিক ও বিভিন্ন কারখানায় রাসায়নিক উপাদান নিয়ে যারা কাজ করেন তারাও ক্যান্সারের ঝুঁকির মধ্যে রয়েছেন বলে গবেষকরা বলছেন৷

অ্যামেরিকান জার্নাল অফ এপিডেমিওলজিতে গবেষণা প্রতিবেদনটি সম্প্রতি প্রকাশিত হয়েছে৷ গবেষণার মূল উদ্দেশ্য ছিল পেশা ও ফুসফুসের ক্যান্সারের মধ্যে কোনো সম্পর্ক আছে কি না তা যাচাই

Irak Wiederaufbau

নির্মাণ শ্রমিকরাও ঝুঁকিতে আছেন

করা৷

ফুসফুসের ক্যান্সারে আক্রান্ত ২,১০০ জন ও বিভিন্ন পেশায় নিয়োজিত ২,১২০ জন সুস্হ মানুষের উপর গবেষণাটি চালানো হয়৷ এর মধ্যে ১২ শতাংশ মানুষ ছিলেন উল্লেখিত পেশাগুলোর৷ গবেষণায় দেখা যায়, এই ১২ শতাংশ মানুষ অন্যান্য পেশার মানুষের চেয়ে ক্যান্সারে আক্রান্ত হবার ক্ষেত্রে ৭৪ শতাংশ বেশি ঝুঁকির মধ্যে ছিলেন৷

সবচেয়ে বেশি যে পেশার মানুষের মধ্যে ক্যান্সারে আক্রান্ত হবার সম্ভাবনা বেশি দেখা গেছে সেগুলো হলো সিরামিক, মৃৎশিল্প ও ইটভাটার কর্মীরা৷ এছাড়া গ্যাস ফিলিং স্টেশন, ট্যানারি, চামড়াজাত শিল্প, গ্লাস ও ওয়েল্ডিং কারখানায় যারা কাজ করেন তাদেরও ফুসফুসের ক্যান্সারে আক্রান্ত হবার ঝুঁকি রয়েছে বলে গবেষণায় জানা গেছে৷

উল্লেখ্য, গবেষণাটি ৩৮৫ জন নারীর উপরও করা হয়েছিল৷ তবে এর মধ্যে মাত্র তিনজন ক্যান্সার রোগী ও দুজন সুস্হ নারীকেই পাওয়া গেছে যারা ঐ ঝুঁকিপূর্ণ পেশায় নিয়োজিত ছিলেন৷ তাই গবেষকরা বলছেন, যেহেতু নারীদের ক্ষেত্রে সংখ্যাটি অনেক কম তাই তাদের কথাটি গবেষণা প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়নি৷

অবশ্য গবেষকরা পরে এক জায়গায় বলেছেন, যে লন্ড্রী ও ড্রাই ক্লিনিং কাজে যে সকল নারী নিয়োজিত আছেন তাদের এই ক্যান্সারে আক্রান্ত হবার কিছুটা সম্ভাবনা থাকে৷

প্রতিবেদনঃ জাহিদুল হক

সম্পাদনাঃ আবদুস সাত্তার

সংশ্লিষ্ট বিষয়