1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

খেলাধুলা

‘কামব্যাক’এ কিস্তি মাৎ করলেন সৌরভ

মঙ্গলবার পুনে ওয়ারিয়ার্স’এর হয়ে আবারো ২২ গজে ফিরে এলেন ‘বাংলার বাঘ’৷ ডেল স্টেইন’এর ঘন্টায় ১৪৫ কিলোমিটার বেগে ধেয়ে আসা গোলার মতো বলকে সামলে, ৩২ বলে ৩২ রান করে অপরাজিত থাকেন তিনি৷

default

‘ওপেনার' হিসেবে নয়, তিন নম্বরে নেমেই আইপিএল ফোরে সফল প্রত্যাবর্তন সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের৷ ডেল স্টেইনের পেস সামলালেন একেবারে ব্যাটের মাঝখান দিয়ে৷ তাছাড়া ঈশান্ত শর্মাকেও বেশ স্বচ্ছন্দে খেললেন কলকাতার ‘মহারাজ'৷

‘ফেসবুক'এর পাতায় তাঁর ফ্যানদের মন্তব্য দেখে যেন প্রাণটা জুড়ে গেল৷ ইস্, যদি খেলাটা ইডেন'এ হতো! এহেন কথাই লিখেছিলেন গাঙ্গুলির ভক্তরা৷ এদিন ইনিংসের শুরুতেই তাঁকে দেখা গেল নিজের পরিচিত লেগ স্ট্যাম্পে সরে গিয়ে অফস্ট্যাম্পে জায়গা করে নিয়ে কভারের ওপর দিয়ে বাউন্ডারি হাঁকাতে৷ এমনকি অমিত মিশ্রকেও একবার ফেললেন বাউন্ডারির বাইরে৷

মঙ্গলবার প্রথমে ব্যাট করে ডেকান চার্জার্স আট উইকেটে ১৩৬ রান করে৷ মিশেল মার্শ ২৫ রানে চার উইকেট নেন৷ এরপর মাঠে নামে পুনে ওয়ারিয়ার্স'এর লড়াকু খেলোয়াড়রা৷ শুরুতেই ২০ বলে ৩৫ রান করে পুনের জয়ের ভিত তৈরি করেন জেসি রাইডার৷ সফল ছিলেন আরেক ওপেনিং ব্যাটসম্যান মণীশ পাণ্ডেও৷ এরপর আশিস নেহরার জায়গায় তিন নম্বরে নেমে সাবলীল ব্যাট করেন সৌরভ৷ শেষ পর্যন্ত ১১টি ম্যাচের পর পুনে ওয়ারিয়ার্স'এর পয়েন্ট এখন আট৷

এটা বলতেই হবে যে, আইপিএল ফোরে সৌরভ'এর খেলার সুযোগ আসে একেবারে শেষলগ্নে৷ কিন্তু তাতে একেবারেই দমে যাননি তিনি৷ গত কয়েকদিনে রীতিমতো অনুশীলন করেছেন সৌরভ৷ প্র্যাকটিস করেছেন বিভিন্ন ‘ম্যাচ সিচুয়েশনেও'৷ আর তাতেই হয়তো মঙ্গলবারের এই যাদু৷ জানা গেছে, সৌরভের সঙ্গে দু'বছরের জন্য চুক্তি করেছে পুনে ওয়ারিয়ার্স৷ তাহলে কি সৌরভ অবশেষে প্রমাণ করলেন, আইপিএল নিলামে তাঁকে দলে না নেওয়া ভুল ছিল বিভিন্ন ফ্র্যাঞ্চাইজের?

প্রতিবেদন: দেবারতি গুহ

সম্পাদনা: আব্দুল্লাহ আল-ফারূক