1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

কাতার-সংকট

কাতারের উপর আরও নিষেধাজ্ঞার হুমকি

প্রত্যাশা অনুযায়ী কাতার সৌদি আরবের নেতৃত্বে কয়েকটি দেশের চাপানো শর্ত পূরণ করলো না৷ ফলে সে দেশের উপর আরও নিষেধাজ্ঞা চাপানোর হুমকি দিলো এই জোট৷ উত্তেজনা কমানোর উদ্যোগ নিচ্ছে ওয়াশিংটন৷

বৃহস্পতিবার রাতে সৌদি আরব, বাহরাইন, সংযুক্ত আরব আমিরাত ও মিশর এক যৌথ বিবৃতিতে জানিয়েছে, কাতারের বৈরি নীতির মুখে নিজস্ব স্বার্থরক্ষায় তারা নিজেদের অধিকার, নিরাপত্তা ও স্থিতিশীলতা বজায় রাখতে সব রকম পদক্ষেপ গ্রহণ করবে৷ কাতার তাদের চাপানো ১৩টি শর্ত পূরণ না করায় এই জোট ধরে নিচ্ছে, সে দেশ অবশ্যই সন্ত্রাসবাদে মদত দিচ্ছে এবং এর মাধ্যমে পারস্য উপসাগরীয় অঞ্চলের নিরাপত্তা ও স্থিতিশীলতা বিপন্ন করছে৷ এই অবস্থায় কাতারের উপর আরও নিষেধাজ্ঞা চাপানোর হুমকি দিলো এই জোট৷ তবে এ বিষয়ে বিস্তারিত কিছু জানানো হয়নি৷

উল্লেখ্য, বুধবার এই জোটের পক্ষ থেকে বলা হয়েছিল যে, কাতারের উপর নতুন নিষেধাজ্ঞা চাপানো হবে না৷ জুন মাসের শুরুতেই কাতারের সঙ্গে কূটনৈতিক যোগাযোগ ও পরিবহণ বন্ধ করে দিয়েছিল এই জোট৷

কাতারকে ঘিরে বর্তমান অচলাবস্থার ফলে দুশ্চিন্তায় পড়েছে মার্কিন প্রশাসন৷ কাতার ও সৌদি আরবসহ বিবাদমান সব দেশের সঙ্গেই ওয়াশিংটন ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক রেখে এসেছে৷ এই অবস্থায় পক্ষপাত দেখানো তাদের জন্য কঠিন৷ তাই সব পক্ষের উদ্দেশ্যে আলোচনার মাধ্যমে সংকট মেটানোর আহ্বান জানাচ্ছে ট্রাম্প প্রশাসন৷

মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী জিম ম্যাটিস বৃহস্পতিবারই কাতারের সঙ্গে অ্যামেরিকার কৌশলগত সম্পর্কের কথা পুনর্ব্যক্ত করেছেন৷ তিনি কাতারের প্রতিরক্ষামন্ত্রী মহম্মদ বিন আতিয়ার সঙ্গে টেলিফোনে কথা বলেন৷ তথাকথিত জঙ্গি সংগঠন ইসলামিক স্টেটের বিরুদ্ধে অভিযান সম্পর্কে তাঁদের আলোচনা হয়েছে৷

পররাষ্ট্রমন্ত্রী রেক্স টিলারসন বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করতে আগামী ১০ই জুলাই কুয়েত সফর করবেন৷ তিনি সম্ভবত মধ্যস্থতার উদ্যোগ নেবেন বলে ইঙ্গিত পাওয়া যাচ্ছে৷ আপাতত কুয়েত দুই পক্ষের মধ্যে মধ্যস্থতার উদ্যোগ নিচ্ছে৷ ওয়াশিংটনও এই উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়েছে৷ মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক মুখপাত্র অবশ্য বলেছেন যে, কাতার সংকট অত্যন্ত জটিল আকার ধারণ করেছে৷ এই সংকট সমাধানে কয়েক সপ্তাহ বা কয়েক মাস লেগে যেতে পারে৷ এমনকি সংকট আরও তীব্র হয়ে উঠতে পারে বলেও আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন তিনি৷

এসবি/এসিবি (রয়টার্স, ডিপিএ, এএফপি, এপি)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়