1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

করাচিতে জোড়া আত্মঘাতী বোমা হামলায় ২৫ জন নিহত

পাকিস্তানের বন্দর নগরী করাচিতে শুক্রবার যুগপৎ চালোনো আত্মঘাতী বোমা হামলায় নারী ও শিশুসহ কমপক্ষে ২৫ জন নিহত হয়েছে৷ আহত হয়েছে প্রায় ১০০ জন৷ এছাড়া নিরাপত্তা কর্মীরা তৃতীয় একটি বোমা নিষ্ক্রিয় করতে সক্ষম হয়েছেন৷

default

পাকিস্তানে ছয় সপ্তাহেরও কম সময়ের মধ্যে শিয়াদের ওপর এটি দ্বিতীয় বড় ধরণের হামলা৷ শিয়াদের গুরুত্বপূর্ণ ধর্মীয় উৎসব মুহররমের শেষদিনে একটি বাস এবং একটি হাসপাতাল লক্ষ্য করে ওই হামলা চালানো হয়৷

প্রত্যক্ষদর্শী ও কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, মোটরসাইকেল আরোহী এক বোমা হামলাকারী শিয়া পুণ্যার্থীদের একটি বাস লক্ষ্য করে বোমা বিস্ফোরণ ঘটালে সেখানে নারী ও শিশুসহ কমপক্ষে ১২জন নিহত হয়৷ এই ঘটনায় কমপক্ষে ৪৯জন আহত হন৷

এর কিছুক্ষণ পর করাচির জিন্নাহ হাসপাতালে দ্বিতীয় বোমা বিস্ফোরণে নিহত হয় আরও ১৩জন৷ আহত হয় আরো প্রায় ৫০ জনের মতো৷ বোমার আঘাতে হাসপাতালের প্রবেশ পথে একটি অ্যাম্বুলেন্স এবং জরুরি বিভাগের একাংশ ক্ষতিগ্রস্ত হয়৷ প্রথম বিস্ফোরণে আহতদের ওই হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছিল এবং হতাহতদের আত্মীয় স্বজনরা ওই প্রবেশ পথে অপেক্ষা করছিলেন৷

স্থানীয় নিরাপত্তা কর্মকর্তা এবং প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, বোমা বিস্ফোরণের শিকার হওয়া ওই বাসটিতে করে শিয়া সম্প্রদায়ের মানুষজন নিকটবর্তী একটি ধর্মীয় তীর্থে যাচ্ছিলেন৷ মুহররমের শেষদিন উপলক্ষ্যে প্রতিবছর এই তীর্থযাত্রায় অংশ নিয়ে থাকে স্থানীয় শিয়া সম্প্রদায়ের শত শত নারী পুরুষ৷

ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী এবং আহত এক ব্যক্তির আত্মীয় ২৬ বছরের আজম আলি বলছিলেন, ‘‘আমি একটা প্রচণ্ড বিস্ফোরণের শব্দ শুনতে পেলাম৷ আগুন আর ধোঁয়ার মধ্যে সবকিছু লণ্ডভণ্ড হয়ে আকাশে উড়তে দেখলাম৷ দুইজন মানুষ আমার সামনেই মাটিতে লুটিয়ে পড়লো৷ আমার মনে হয় ওরা মারা গেছেন৷''

আজম আরও বলেন, ‘‘হতাহতদের বেশিরভাগই শিয়া সম্প্রদায়ের মানুষ৷ এই হাসপাতালের সামনে যারা ছিলেন তাদের বেশিরভাগই প্রথম বিস্ফোরণে হতাহতদের আত্মীয়স্বজন৷''

স্থানীয় সাহায্য সংস্থা ‘ইডিএইচআই' এর স্বেচ্ছাসেবক মোহাম্মদ মেজবুব জানান, ‘‘ আমার তিন সহকর্মী আহত হয়েছেন৷ পাঁচটি অ্যাম্বুলেন্স প্রায় বিধ্বস্ত হয়ে গেছে৷ আমরা আসলে নিশ্চিত মৃত্যুর হাত থেকে বেঁচে এসেছি৷ আমরা যে বেঁচে আছি এটাই বিশ্বাস হচ্ছে না৷''

ওদিকে, নিরাপত্তা কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, হাসপাতালটির পার্কিংয়ে একটি টেলিভিশনের মধ্যে পেতে রাখা বোমা নিষ্ক্রিয় করতে সক্ষম হয়েছেন তারা৷

প্রতিবেদক: মুনীর উদ্দিন আহমেদ

সম্পাদনা: আব্দুল্লাহ আল-ফারূক

সংশ্লিষ্ট বিষয়