1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

কঙ্গোয় নারী ও শিশু ধর্ষণের ঘটনায় ধিক্কার

গণতান্ত্রিক কঙ্গোর একটি গ্রামে বিদ্রোহী গ্রুপ কর্তৃক নারী এবং শিশুদের পাশবিক নির্যাতনের ঘটনায় প্রচন্ড ক্ষোভ প্রকাশ করেছে জাতিসংঘ৷ জানিয়েছে ধিক্কার৷ জড়িতদের কঠোর বিচারের মুখোমুখি করার প্রত্যয়ও জানিয়েছে নিরাপত্তা পরিষদ৷

default

কঙ্গোর নারীরা রয়েছেন প্রচন্ড ঝুঁকিতে

৩০শে জুলাই থেকে ৩রা আগস্ট৷ কঙ্গোর সীমান্ত শহর দক্ষিণ কিবো প্রদেশের লুভুঙ্গি শহরের একটি গ্রাম দখল করে নেয় বিদ্রোহীরা৷ উল্লেখিত সময়ের মধ্যে এক এক করে ১৭৯ জন নারী এবং শিশু পালাক্রমে ধর্ষণের শিকার হয়েছে সেখানে৷

এ অঞ্চলটিতে রুয়ান্ডার হুতু বিদ্রোহীদের আনাগোনা খুব বেশি৷ লুভুঙ্গি শহরের ঐ গ্রামের খুব বেশি দূরে নয় জাতিসংঘের শান্তিরক্ষী বাহিনীর সেনানিবাস৷ অথচ তাদের কাছে সে সংবাদ সে সময় পৌঁছাইনি৷ উপরোন্ত এই খবর তাদের গোঁচরে এসেছে প্রায় একমাস পর৷ সঙ্গে সঙ্গে পুরো বিশ্ব ধিক্কার জানিয়েছে এই ঘটনার৷

এরপর জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদে এ নিয়ে বৈঠকে বসে৷ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র এবং ফ্রন্সের আহ্বানে ঐ সভায় ঘটনার তীব্র নিন্দা জানানো হয়৷ একই সঙ্গে কেন এই সংবাদ জাতিসংঘ শান্তিরক্ষী বাহিনীর কাছে দ্রুত এলো না, তা নিয়ে জবাবও চাওয়া হয়েছে৷ বলা হয়, গণ ধর্ষণকারীদের ধরতে হবে, কোনো ছাড় দেয়া যাবে না৷ স্বাভাবিকভাবেই, ঘটনায় প্রচন্ড উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন জাতিসংঘের মহাসচিব বান কি-মুন৷

উল্লেখ্য, বিদ্রোহী দলগুলোর সদস্যদের হাতে চলতি বছরই কঙ্গোতে প্রায় ১ হাজার ২৪৪ জন নারী ও শিশু ধর্ষণের শিকার হয়েছে৷

প্রতিবেদন: সাগর সরওয়ার

সম্পাদনা: দেবারতি গুহ

ইন্টারনেট লিংক