1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

সমাজ সংস্কৃতি

এশিয়ায় লাল ফিতার দৌরাত্ম সবচেয়ে বেশি ভারতে

লাল ফিতার দৌরাত্মে এশিয়ায় সবচেয়ে এগিয়ে ভারত৷ সাম্প্রতিক এক জরিপে পাওয়া গেছে এই তথ্য৷ হংকং ভিত্তিক পলিটিক্যাল অ্যান্ড ইকোনমিক রিস্ক কনসাল্টেন্সি বা পিইআরসি জরিপটি পরিচালনা করে৷

default

পরিচয়পত্র থাকলেই যে কাজ হবে তা নয়

আমলারাই ভারতে মূল ক্ষমতার অধিকারী, বলে মন্তব্য করা হয়েছে পিইআরসি'র ঐ জরিপে৷ যাতে অংশ নেন মধ্য ও উচ্চ পর্যায়ের ১,৩৭৩ জন প্রবাসী কর্মকর্তা৷ দেখা যায়, সেখানে রাজনীতিবিদরা সবসময়ই আমলাতন্ত্রের সংস্কারের কথা বলে থাকেন৷ কিন্তু আদতে কিছুই করতে পারেননি তাঁরা, বলেছে পিইআরসি৷ সংস্থাটির মতে, শুধু বিদেশী বিনিয়োগকারীই নয়, ভারতের আমলাতন্ত্রের সঙ্গে অভিজ্ঞতা যেকোন ভারতীয়'র জন্যই অনেক বেশি হতাশার৷

এই জরিপে ভারতের পরে ইন্দোনেশিয়ার অবস্থান৷ পিইআরসি বলছে যে, আমলাদের কারণেই সেখানে গত মাসে পদত্যাগ করতে হয়েছে সর্বজন শ্রদ্ধেয় অর্থমন্ত্রী শ্রী মুলায়ানি ইন্দ্রবতীকে৷ প্রেসিডেন্ট সুসিলো বামবাং ইয়ুধোইয়োনো নির্বাচনের আগে আমলাতন্ত্র সংস্কারের কথা বললেও তিনি সেটা করতে ব্যর্থ হয়েছেন, বলে মন্তব্য করা হয়েছে জরিপে৷

বছরের শুরুর দিকে এশিয়ার ১২টি দেশের উপর এই জরিপ করা হয়৷ সিঙ্গাপুর আর হং কং এতে শীর্ষস্হান দখল করে৷ অর্থাৎ দেশ দুটিতে লাল ফিতার দৌরাত্ম সবচেয়ে কম৷ শুধু এশিয়া নয়, বিশ্ব জরিপেও সিঙ্গাপুরের অবস্থান এক নম্বরে৷ বিশ্বব্যাংকের সাম্প্রতিক এক হিসেব থেকে জানা গেছে তা৷ বিশ্বব্যাংকের ঐ জরিপে হং কং-এর অবস্থান তিন নম্বরে৷

এবার আবারো পিইআরসি'র জরিপের কথায় ফিরে আসি৷ ঐ জরিপে ভারত আর ইন্দোনেশিয়ার পরের দেশগুলো হলো ক্রমান্বয়ে ফিলিপাইন, ভিয়েতনাম, চীন, মালয়েশিয়া, তাইওয়ান, জাপান, দক্ষিণ কোরিয়া ও থাইল্যান্ড৷

পিইআরসি বলছে, ভারত ও চীনে লাল ফিতার দৌরাত্ম একই রকম হলেও রাজনৈতিক ব্যবস্থার কারণে চীনের চেয়ে ভারতে বিনিয়োগকারীদের সমস্যায় পড়তে হয় বেশি৷

আমলাতন্ত্রের সমস্যা দূর করতে ফিলিপাইনের সরকারও সচেষ্ট৷ কিন্তু সেখানেও এখনো সফলতা আসেনি বলে জরিপ প্রতিবেদনে বলা হয়েছে৷

প্রতিবেদন : জাহিদুল হক
সম্পাদনা : দেবারতি গুহ

সংশ্লিষ্ট বিষয়