1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিজ্ঞান পরিবেশ

এবার আইপ্যাডের সঙ্গে প্রতিযোগিতায় নামছে উইপ্যাড

বার্লিন ভিত্তিক কোম্পানি নিওফনি একটি ট্যাবলেট কম্পিউটার বের করার পরিকল্পনার কথা আগেই ঘোষণা করেছে৷ নাম তার উইপ্যাড৷ অ্যাপেলের আইপ্যাডের সঙ্গে প্রতিযোগিতা করতেই বাজারে নামছে উইপ্যাড৷

default

অ্যাপেলের আইপ্যাডের সঙ্গে প্রতিযোগিতা করতেই বাজারে নামছে উইপ্যাড

জার্মান কোম্পানি নিওফনির তৈরি উইপ্যাড বাজারে নামতে যাচ্ছে আগস্ট মাসে৷ অর্থাৎ জার্মানির বাজারে আইপ্যাড আসার আগেই উইপ্যাড চলে আসতে পারে৷ নিওফনির জিএমবিএইচ নামের একটি কোম্পানির তৈরি উইপ্যাডে আইপ্যাডের চেয়েও বেশি প্রযুক্তি থাকবে বলে উল্লেখ করা হচ্ছে৷ ছোট্ট ডিভাইসটিতে পড়া যাবে পত্রিকা, বই, ম্যাগাজিন, দেখা যাবে ফিল্ম এবং সার্চ করা যাবে অনলাইন৷ আর উইপ্যাডের দাম পড়বে ৪৪৯ এবং ৫৬৯ ইউরো৷ ডলারে প্রায় ৬১০ এবং ৭৭০ ডলার৷

কোম্পানির প্রধান হেলমুট হোফার ফন আংকার্সহোফেন আইপ্যাড বাজারে আসার আগেই সম্প্রতি সাংবাদিকদের সামনে উইপ্যাডের বৈশিষ্ট তুলে ধরেন৷ তিনি বেশ মজা করেই বলেছেন, সিঙ্গুলার আই-এর চেয়ে প্লুরাল উই-এর কার্যকারিতা বেশি৷ তিনি বলেন, ‘‘বার্তামাধ্যমে আমাদের আইপ্যাড-কিলার হিসেবে দেখা হচ্ছে৷ আমরা কিন্তু নিজেদের এভাবে দেখছিনা৷ গাড়ি যেমন অনেক রকমের আছে, ঠিক সেরকম অনেক ধরণের ট্যাবলেট পিসিও বাজারে আসবে৷ উইপ্যাডের মধ্য দিয়ে আমরা আইপ্যাডের একটা বিকল্প তৈরি করেছি৷ সুনির্দিষ্ট চাহিদার সুনির্দিষ্ট কিছু গ্রুপকে লক্ষ্য করেই আমাদের এই উদ্ভাবন৷ এটা দারুণ এবং আইপ্যাডের চেয়ে উন্নততর একটি যন্ত্র৷ তবে আমি নিজের জন্য উইপ্যাডের বাইরে অতিরিক্ত এক আইপ্যাডও কিনবো৷''

WePad Tablet PC der Firma Neofonie

নিওফনি কোম্পানির প্রধান হেলমুট হোফার ফন আংকার্সহোফেন সাংবাদিকদের সামনে উইপ্যাডের বৈশিষ্ট তুলে ধরছেন

আংকার্সহোফেন ১৯৯৮ সালে নিজের কোম্পানি শুরুর আগেই সার্চ ইঞ্জিন ফায়ারবল-এর নকশা করেন৷ আর এর মধ্যে দিয়েই শুরু হয় তাঁর ব্যবসায়িক উদ্যোগ৷ তাঁর কোম্পানির কর্মী সংখ্যা ১৭০ জন৷ আংকার্সহোফেন জোরের সঙ্গে বলেন, যে উইপ্যাড আইপ্যাডের চেয়ে অনেক কিছুই বেশি করতে পারে৷ তিনি বলেন, এবং শুধু নকশার দিক দিয়েই আইপ্যাড একটু বেশি আকর্ষণীয়৷ তার মানে হচ্ছে উই প্যাড কি কি করতে পারে তা নিয়ে বেশি মাতামাতির প্রয়োজন নেই৷

নিশ্চই জানতে ইচ্ছে করছে উইপ্যাড দেখতে কেমন ? উইপ্যাড প্রস্থে ২৯ এবং দৈর্ঘে ১৯ সেন্টিমিটার৷ সাথে রয়েছে একটি ওয়েবক্যাম, দুটি ইউএস বি সংযোগ এবং একটি মেমোরি কার্ড রিডার৷ এশিয়ায় যেটি তৈরি হচ্ছে সেটি হবে ১৬ এবং ৩২ গিগাবাইট মডেল৷ এবং একটি এস ডি কার্ডের মাধ্যমে মেমোরি ক্যাপাসিটিও বেশি হবে৷ এছাড়াও উইপ্যাডে অতিরিক্ত কী বোর্ড ব্যবহার করা যাবে৷ ডিজিটাল ক্যামেরা থেকে সরাসরি ডিসপ্লে তে ছবি দেখা যাবে৷

আইপ্যাডের সঙ্গে পার্থক্যের কথা বলতে গিয়ে তিনি জানান, ‘‘আইপ্যাডের সঙ্গে আমাদের বড় পার্থক্য হল৷ উইপ্যাডে দুটি স্ট্যান্ডার্ড ইউএসবি টু পয়েন্ট জিরো প্লাগ পয়েন্ট আছে৷ এটা গুরুত্বপূর্ণ কেন ? আমার ইউএসবি স্টিক আমি সহজেই যন্ত্রে ঢুকিয়ে স্টিকে ধারণ করা ডেটা নিয়ে কাজ করতে পারি৷ এতে একটা ওয়েবক্যামও আছে৷ উইপ্যাডে স্কাইপও করা যাবে৷ শুধু অডিও নয়, ভিডিও কনাফারেন্সও করা সম্ভব হবে৷''

আর উইপ্যাডের চাহিদা ? জানা গেছে, আগে থেকেই প্রায় ২০ হাজার উইপ্যাডের অর্ডার দেয়া হয়েছে৷ ট্যাবলেটটির জন্যে আরো প্রায় ১০ হাজার আবেদনপত্র পরতে পারে বলে আশা করা হচ্ছে৷ এছাড়া যারা গান ডাউনলোড করতে চান তাদের জন্যে উইপ্যাডে রয়েছে বাড়তি সুবিধা৷ ইচ্ছে করলেই যেকেউ উইপ্যাডে গান সংরক্ষণ করতে পারবেন৷ এইজন্যে আলাদা কোন সফটওয়্যারের প্রয়োজন হবে না৷ উল্লেখ্য, এই ক্ষেত্রে আইপ্যাডের জন্য ব্যবহারকারীদের অ্যাপেলেরই আইটিউনস সফটও্যারটির প্রয়োজন হবে৷

প্রতিবেদক : ফাহমিদা সুলতানা

সম্পাদনা : আব্দুল্লাহ আল- ফারুক

সংশ্লিষ্ট বিষয়