1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিজ্ঞান পরিবেশ

একশ বছর বাঁচাবে নতুন ট্যাবলেট!

শতবর্ষের জন্মবার্ষিকী পালন করার ইচ্ছা মনে মনে অনেকেই হয়তবা লালন করেন৷ কিন্তু বৃদ্ধ বয়সের রোগব্যাধি সে-ইচ্ছায় বাদ সাধে৷ কিন্তু এবার এক দল বিজ্ঞানী শতবর্ষের এ স্বপ্ন পূরণের উপায় বার করতে চলেছেন৷

default

বিজ্ঞানীরা এমন একটি ওষুধ নিয়ে পরীক্ষা নিরীক্ষা করছেন, যা কিনা আলসহাইমার, ডায়বেটিস-এর মত প্রভৃতি রোগ জয় করে মানুষকে একশ বছর বাঁচতে সাহায্য করবে৷ আগামী তিন বছরের মধ্যেই এই ওষুধ বেরিয়ে যেতে পারে৷

বিজ্ঞানীরা তিনটি জিন আবিস্কার করেছেন যা কিনা বৃদ্ধ বয়সের সাধারণ রোগবালাই আটকে দেবে৷ বিজ্ঞানীরা ৫০০ আশকেনাজি ইহুদির ডিএনএ পরীক্ষা করে এই তিনটি জিন চিহ্নিত করা হয়৷ তাঁদের গড় বয়স ১০০ বছর৷ সাধারণত দশ হাজারে মাত্র এক জনের শতবর্ষে পা রাখার সম্ভাবনা থাকে৷ কিন্তু পরীক্ষাধীন ঐ ইহুদিদের গ্রুপটির ক্ষেত্রে শতায়ু হবার সম্ভাবনা ছিল ২০ গুণ৷

ডিএনএ পরীক্ষা করার পর যে জিন তিনটি পাওয়া গেছে তার মধ্যে দুইটি জিন ভাল কোলেস্টেরলের মাত্রা বাড়াতে সাহায্য করে, যা কিনা হৃদরোগ ও স্ট্রোক হ্রাস করে এবং অপর জিনটি ডায়বেটিস প্রতিরোধে সহায়তা করে৷

ড. নীর র্বাজিলাই জানান, তাঁরা দীর্ঘ জীবনের ‘‘সুপার ড্রাগ'' তৈরি করছেন৷ যা কিনা জিনগুলোর নকল হিসেবে কাজ করবে৷ তিন বছরের মধ্যে তা পরীক্ষার জন্য প্রস্তুত হয়ে যেতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে৷ নিউ ইর্য়ক ভিত্তিক জেনেটিক্স বিশেষজ্ঞ বার্জিলাই বলেন, যাদের ওপর এ পরীক্ষা চালানো হয় তাদের ৩০ শতাংশই ছিলেন ভীষণ মোটা এবং আরও ৩০ শতাংশ ৪০ বছর ধরে দিনে দুই প্যাকেট সিগেরেট খান৷ কিন্তু এই শতববর্ষজীবীদের দেহে দীর্ঘায়ু হবার জিন থাকায় তারা পরিবেশের বহু ক্ষতিকর প্রভাব থেকে নিজেদের রক্ষা করতে পারেন৷ আর তাই তারা যা করতে চান তাই করেন৷

জেনেটিক্স বিশেষজ্ঞ বার্জিলাই আরও জানান, যে জিন দু'টি ভাল কোলেস্টেরলের মাত্রা বাড়াতে সাহায্য করে তাদের মত কোন ওষুধ কিন্তু হৃদরোগ নিরাময়ে এতটা কার্যকর অবদান রাখে না৷ অপর জিনটি ডায়বেটিস নিরাময়ে সহায়তা করে বলে তাঁদের ধারণা৷ এই জিনটি যাদের রয়েছে তারা আলসহাইমার রোগের হাত থেকে ৮০ শতাংশ নিরাপদ৷

ইসরায়েলে জন্ম নেয়া র্বাজিলাই আরও বলেন, জীববিজ্ঞানের এক রহস্য তাঁরা উন্মোচিত করার চেষ্টা করছেন৷ ঠিক তারই মত কিছু বার করা গেলে দারুণ এক দীর্ঘ জীবন পাওয়া যেতে পারে৷ তিনি মনে করেন দীর্ঘ জীবনের ৮০ শতাংশ নির্ভর করে জীবন যাপনের পদ্ধতির ওপর আর বাকি ২০ শতাংশ নির্ভর করে জিনের ওপর৷ তবে তাঁর ধারণা, শতায়ুদের ক্ষেত্রে এর উল্টোটাই সত্যি৷ তাদের দীর্ঘ জীবন বহুলাংশে জিননির্ভর৷

প্রতিবেদক : আসফারা হক

সম্পাদক: আবদুল্লাহ আল-ফারূক

সংশ্লিষ্ট বিষয়