1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

‘‘এই বিশ্বকাপ হৃদরোগের কারণ হতে পারে’’

বিশ্বকাপে রবিবার রাতে ম্যাচ শেষের মাত্র আধ মিনিট আগে গোল করে সমতা আনে পর্তুগাল৷ ফলে দ্বিতীয় রাউন্ডে উঠতে শেষ ম্যাচ পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হচ্ছে যুক্তরাষ্ট্রকে৷ আর পর্তুগালও বাঁচিয়ে রেখেছে তাদের স্বপ্ন৷

default

ম্যাচ শেষের মাত্র আধ মিনিট আগের সেই গোলের মুহূর্ত

বিশ্বকাপে এবার এমনই উত্তেজনাপূর্ণ কয়েকটি ম্যাচ দেখতে পাচ্ছেন সমর্থকরা৷ তাই তো ফেসবুকে ইরেশ যাকের লিখেছেন, ‘‘সংবিধিবদ্ধ সতর্কীকরণ: ‘‘এই বিশ্বকাপ হৃদরোগের কারণ হতে পারে৷'' স্ট্যাটাসটি দেয়া হয় যুক্তরাষ্ট্র ও পর্তুগালের মধ্যকার খেলা শেষে৷ স্ট্যাটাসের নীচে মন্তব্যের ঘরে নভেল রহমান লিখেছেন, ‘‘আসলেই তাই৷ শেষ গোলের সময় জোরে চিৎকার দেয়াতে বুঝতে পারলাম হার্টবিট তুমুল ফাস্ট হয়ে গিয়েছিল৷''

মেহরাজ মোহসীন, রামেন মিত্রয়, নুসরাত জাহান পূর্বা সহ অনেকেই স্ট্যাটাসের কথার সঙ্গে একমত পোষণ করার কথা জানিয়েছেন৷

এদিকে সামহয়্যার ইন ব্লগে মো. মাকসুদুর রহমান ‘‘অনিশ্চয়তার গোলক ধাধাঁয় ঘুরছে ২০১৪ ফিফা বিশ্বকাপ!!!!'' শিরোনামে একটি পোস্ট দিয়েছেন৷

তিনি লিখেছেন, ‘‘টুর্নামেন্টের সপ্তাহ পেরোতে না পেরোতেই স্পেন বাদ, ইংল্যান্ড বাদ৷ বাদ পড়তে যাচ্ছে সাবেক বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন ইটালি ও উরুগুয়ের যে-কোনো একটি৷ পর্তুগাল দ্বিতীয় রাউন্ডে উঠতে ব্যর্থ হচ্ছে৷ বাদ পড়ছে ২০০২ সালের সেমিফাইনালিস্ট দক্ষিণ কোরিয়া৷ ১৯৭৮ বিশ্বকাপের পর ব্রাজিলকে কখনো দ্বিতীয় রাউন্ড নিশ্চিত করতে গ্রুপের শেষ ম্যাচ পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হয়নি৷ কিন্তু এবার তারা এখনো অপেক্ষায়৷ অথচ চিলি আর কোস্টারিকা কিনা দ্বিতীয় রাউন্ডে উঠে অপেক্ষারত! পাগুলে বিশ্বকাপ না বলে কি কোনো উপায় আছে?''

একই ব্লগে নোমান নমি ‘‘আপনারা যারা অন্ধ ব্রাজিল করেন ১'' শিরোনামে লিখেছেন ‘‘ব্রাজিল বড় দল, পাঁচবার বিশ্বকাপ জিতেছে৷ আর্জেন্টিনার সাপোর্টারদের হিংসা থাকবেই৷ বড়দের প্রতি ছোটদের হিংসা থাকতেই পারে৷ কিন্তু আর্জেন্টিনা ছোট দল, দুইবার জিতেছে মাত্র৷ অন্যদিকে পাঁচবারের চ্যাম্পিয়নের সমর্থকরা আর্জেন্টিনার বিরোধিতা করে নিজেদের দুই বারের চ্যাম্পিয়নের কাতারে নিয়ে আসে!''

এদিকে, এইচ তালুকদার সামহয়্যার ইন ব্লগে জার্মানির মিরোস্লাভ ক্লোজে সম্পর্কে লিখেছেন, ‘‘তাঁর খেলার ধরন চোখ ধাঁধানো নয়৷ এমনকি তাঁকে নিয়ে কখনোই মিডিয়ায় মাতামাতি দেখি নি, অনেকটা আড়ালে থেকেই নিয়মিত তাঁর কাজটি করে গেছেন৷ আর তাতেই মিরোস্লাভ ক্লোজে হয়ে গেলেন রেকর্ডের অংশ৷''

সংকলন: জাহিদুল হক

সম্পাদনা: দেবারতি গুহ

নির্বাচিত প্রতিবেদন