1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

জার্মানিতে উচ্চশিক্ষা

উচ্চশিক্ষা ক্ষেত্রে নানা সমস্যায় ভুগছেন প্রতিবন্ধীরা

২০০৯ সালে জাতিসংঘের প্রতিবন্ধীসংক্রান্ত কনভেনশনে সই করে জার্মানি৷ কিন্তু সেবাস্টিয়ান পামপুখের মতো যাঁরা ডক্টরেট করছেন, তাঁদের কোনো সুবিধা হয়নি৷ এক্ষেত্রে পরিবর্তনের প্রচেষ্টা চালাচ্ছে ‘পিআরওএমআই’ বা ‘প্রমি’ উদ্যোগ৷

প্রতিবন্ধীবিষয়ক নীতিমালায় স্বাক্ষর দেওয়ার পর থেকে জার্মানিতে স্কুলের ক্ষেত্রে অন্তর্ভুক্তি নিয়ে আলোচনা চলছে৷ অন্যদিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রায় সাত শতাংশ শিক্ষার্থী কম-বেশি প্রতিবন্ধকতা নিয়ে পড়াশোনা করছেন৷ অনেকে ডক্টরেটও করছেন৷

ক্যানসারে আক্রান্ত হয়ে প্রতিবন্ধকতা

৪০ বছর বয়সি সেবাস্টিয়ান সাবেক পূর্ব জার্মানিতে বসবাসকারী আফ্রিকানদের জীবন নিয়ে গবেষণা করছেন৷ এক্ষেত্রে হামবুর্গের ‘জার্মান ইন্সটিটিউট অফ গ্লোবাল অ্যান্ড এরিয়া স্টাডিস', সংক্ষেপে জিআইজিএ এক উপযুক্ত শিক্ষালয়৷

Projekt „Promotion inklusive

সেবাস্টিয়ান সাবেক পূর্ব জার্মানিতে বসবাসকারী আফ্রিকানদের জীবন নিয়ে গবেষণা করছেন

মাস ছয়েক ধরে এই ইন্সটিটিউটে লাইব্রেরিয়ান হিসাবে কাজ করছেন তিনি৷ তাঁর গবেষণার জন্য এই লাইব্রেরি যেন এক রত্মভাণ্ডার৷

শিগগিরই বার্লিনের হুমবোল্ট ইউনিভার্সিটির ‘ইন্সটিটিউট ফর ইউরোপীয় এথনোলজিতে' ডক্টরেটের কাজ শুরু করবেন সেবাস্টিয়ান৷ সেখানে তিনি মাস্টার কোর্সও করেছেন৷ গুরুতর ক্যানসারে আক্রান্ত হওয়ায় ঠিকমত চলাফেরা করতে পারেন না তিনি৷ অনেকদিন আগেই কোনো বিশ্ববিদ্যালয়ে গবেষণা সহকারী পদের জন্য আবেদন করেছিলেন৷ কিন্তু সফল হননি৷ বৃত্তি পাওয়ার চেষ্টাও ব্যর্থ হয়৷ অবশেষে একটি ক্ষেত্রে সাফল্যের মুখ দেখা গেলো৷ প্রতিবন্ধী অ্যাকাডেমিকদের জন্য বিশেষ উদ্যোগ ‘প্রোমোশন ইনক্লুসিভ' – ‘পিআরওএমআই' বা ‘প্রমি'-র পক্ষ থেকে সহায়তা পাবেন সেবাস্টিয়ান৷

কয়েক গ্রুপে ভাগ করা হয়েছে

সব মিলিয়ে ৪৫ জন গবেষককে সহায়তা দিচ্ছে ‘প্রমি'৷ প্রথম গ্রুপের ১৫ জনের মধ্যে সেবাস্টিয়ান একজন৷ এরপর অন্য দুই গ্রুপকে আনা হবে সাহায্যের আওতায়৷ তাঁরা সবাই তিন বছর ধরে গবেষণা সহকারী হিসাবে ১৪টি সহযোগী বিশ্ববিদ্যালয়ের কোনো একটিতে কাজ করবেন৷

আসলে সেবাস্টিয়ান ২০০৯ সালে মাস্টার্স করার পর ডক্টরেট শুরু করতে চেয়েছিলেন৷ কিন্তু খরচ চালাবার জন্য তাঁর প্রয়োজন ছিল গবেষণা সহকারীর কাজ বা বৃত্তি৷ কিন্তু দুই বছর কেটে গেলেও কোনোটারই মুখ দেখতে পাননি তিনি৷

জার্মানির শিক্ষার্থীদের মধ্যে খুব কম সংখ্যকই কোনো বৃত্তি নিয়ে পড়াশোনা করছেন৷ এর মধ্যে কতজন ডক্টরেট করছেন তা বলা যায় না৷ কেননা এক্ষেত্রে কোনো পরিসংখ্যান নেই৷ বৃত্তিদানকারী প্রতিষ্ঠানগুলি মনে করে এ ব্যাপারে সবারই সমানাধিকার থাকা উচিত৷

সেবাস্টিয়ান মনে করেন, প্রতিবন্ধী অ্যাকাডেমিকদের সমস্যাগুলি নিয়ে তেমন মাথা ঘামানো হয় না৷ ফর্ম পূরণ করার সময় এমন কোনো ঘর পাননি তিনি, যেখানে ক্রস দেওয়া যায়৷ তিনি প্রতিবন্ধী হিসাবে ‘বোনাস' চান না৷ কিন্তু তাঁর বায়োডাটায় ফাঁকটার ব্যাখ্যা দিতে চান৷

১২ থেকে ২৫ বছর বয়স পর্যন্ত সব মিলিয়ে দুই বছর হাসপাতালে থাকতে হয়েছে তাঁকে৷ অল্পবয়সে অস্থির ক্যানসারে আক্রান্ত হন সেবাস্টিয়ান, যার চিহ্ন এখনও রয়ে গিয়েছে৷

চলাফেরায় অসুবিধা

চলার সময় খুঁড়িয়ে হাঁটতে হয়৷ বসার সময় বা পা ভাজ করতে পারেন না৷ এই পায়েই টিউমারটা হয়েছিল৷ এক ধরনের বন্ধফলক বা স্প্লিন্ট দিয়ে পা-টির ভারসাম্য রক্ষা করার চেষ্টা করা হয়েছে৷

বেশিক্ষণ বসে থাকতেও অসুবিধা হয় তাঁর৷ কিন্তু এরপরেও থিসিসে মনোযোগ কমেনি এই অধ্যাবসায়ীর৷ আর তাই তো চাকরি ও বৃত্তির আবেদন নাকোচ হয়ে যাওয়ার পর জিআইজিএ-র গ্রন্থাগারে খণ্ডকালীন চাকরি শুরু করেন সেবাস্টিয়ান৷ পাশাপাশি চালিয়ে যান গবেষণার কাজ৷

অন্যদিকে হুমবোল্ট ইউনিভার্সিটিতে গবেষণা শুরু করার আগে বেশ কিছু কাজ সারতে হচ্ছে তাঁর প্রফেসর বেয়াটে বিন্ডারকে৷ কাজের জায়গাটি সেবাস্টিয়ানের শারীরিক প্রতিবন্ধকতার দিকে লক্ষ্য রেখে ঠিকঠাক করা হচ্ছে৷ উঁচু বা নীচু করা যায় এমন একটি টেবিলের অর্ডার দেওয়া হয়েছে ইতোমধ্যেই৷ প্রফেসর বিন্ডার জানান, ‘ইন্সটিটিউট ফর ইউরোপীয়ান এথনোলজি'-কে ২০ শতাংশ খরচ বহন করতে হয়৷ ‘‘এটা একটা অতিরিক্ত চাপ৷ কিন্তু তা আমরা সামলাতে পারব৷''

একটি শুভ উদ্যোগ

প্রতিবন্ধী অ্যাকাডেমিকদের জন্য বিশেষ এই প্রকল্পকে খুব ভালো বলে মনে করেন তিনি এবং এতে সহায়তা দিতেও আগ্রহী৷ তবে মাঝে মাঝে বাধার সম্মুখীনও হতে হয়৷ আরেক ডক্টরেটের ছাত্রীর শ্রবণযন্ত্র কেনার ব্যাপারে চেষ্টা চালিয়ে যেতে হচ্ছে তাঁকে৷ সংশ্লিষ্টদের পক্ষ থেকে আপত্তি জানিয়ে বলা হচ্ছে, ‘‘থিসিস লেখার জন্য তো শোনার প্রয়োজন নেই৷''

‘প্রমি'-র কাজটি পাওয়ায় সেবাস্টিয়ান এখন স্বস্তি পেয়েছেন৷ পাঁচ বছর ধৈর্য ধরে অপেক্ষা করার পর পাওয়া গেল আর্থিক নিরাপত্তা৷ এখন পুরোপুরি থিসিসের কাজে মনোযোগ দিতে পারবেন এই গবেষক৷

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়