1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

ইরানের মুসল্লিরা হজ যাত্রা থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন

হজ যাত্রার বিষয়ে সৌদি আরবের সঙ্গে চুক্তি সাক্ষর না করেই দেশে ফিরে গেলেন ইরানের প্রতিনিধিরা৷ ফলে এ বছর ইরানি মুসল্লিরা হজ যাত্রা করতে পারবেন না৷ দুই দেশ পরস্পরকে এ জন্য দায়ী করছে৷

বেশ কিছুকাল ধরে সৌদি আরব ও ইরানের মধ্যে সম্পর্কের অবনতি ঘটে চলেছে৷ এবার হজ যাত্রাকে কেন্দ্র করে তা নতুন মাত্রা পেল৷ রবিবার ইরান জানিয়েছে, এ বছর সে দেশের কোনো তীর্থযাত্রী মক্কায় হজ পালন করতে যাবেন না৷ সৌদি আরব ইরানের মুসল্লিদের নিরাপত্তার গ্যারেন্টি দিতে ব্যর্থ হওয়ায় এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে ইরান জানিয়েছে৷

ইরানের সংস্কৃতি মন্ত্রী আলি জানাটি বলেন, সৌদি সরকার ইচ্ছাকৃতভাবে ইরানি মুসল্লিদের হজযাত্রা বন্ধ করার পদক্ষেপ নিয়েছে৷ উল্লেখ্য, গত বছর হজ চলাকালীন কয়েক'শ ইরানীয় মুসল্লি পদদলিত হয়েছিলেন৷ সেই ঘটনার পর সৌদি আরব কোনো রিপোর্ট প্রকাশ করেনি৷ এর আগে ১৯৮৭ সালের পর ইরান ৩ বছর হজযাত্রা বন্ধ রেখেছিল৷

অন্যদিকে সৌদি আরব এই অচলাবস্থার জন্য ইরানকেই দায়ী করেছে৷ সে দেশের সরকারের মতে, ইরানের হজ সংগঠনের সঙ্গে আলোচনার পর যে চুক্তিপত্র প্রস্তুত করা হয়েছিল, ইরান তা সাক্ষর না করে হাজার হাজার মুসলিমকে হজ পালন থেকে বঞ্চিত করছে৷ সৌদি আরব কোনো মুসলিমকে কখনো হজ পালনে বাধা দেয় না বলে জানিয়েছেন সৌদি পররাষ্ট্রমন্ত্রী আদেল আল জুবেইর৷ তিনি বলেন, প্রতি বছর ৭০টিরও বেশি দেশের সঙ্গে এই মর্মে চুক্তি সাক্ষরিত হয়৷

হজযাত্রাকে কেন্দ্র করে রাজনীতি নিয়ে টুইটারে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন অনেকে৷

সৌদি আরব-ইরানের সম্পর্কের অবনতির একের পর এক ঘটনা দুই দেশের মধ্যে উত্তেজনা বাড়িয়ে তুলছে৷ কূটনৈতিক সংঘাতের পর এবার সাইবার যুদ্ধেরও আশঙ্কা দেখা যাচ্ছে৷

এসবি/এসিবি (রয়টার্স, এএফপি)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়