1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

ইরাকে নির্বাচনে কিছুটা এগিয়ে মালিকি

ইরাকের সাধারণ নির্বাচনের উপর কোন দলই এখনো পুরোপুরি নিয়ন্ত্রণ নিতে পারেনি৷ এক সপ্তাহে আগে অনুষ্ঠিত এই নির্বাচনের ফলাফল রবিবার পর্যন্ত যা পাওয়া গেছে তাতে এখনো রাজনৈতিক জোটগুলোর মধ্যে ব্যবধান খুব বেশি নয়৷

default

ফাইল ফটো

অবশ্য খানিকটা এগিয়ে বর্তমান প্রধানমন্ত্রী নুরি আল-মালিকির জোট ‘স্টেট অফ ল'৷ রবিবার ঘোষিত আংশিক ফলাফলে ইরাকের দক্ষিণের শহর বসরায় মালিকির জোট এগিয়ে রয়েছে৷ অন্যদিকে, পশ্চিমের প্রদেশ আল-আনবারে এগিয়ে মালিকের মূল প্রতিদ্বন্দ্বী সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইয়াদ আলাউয়ির জোট ইরাকিয়া৷

ইরাকের নির্বাচনের চূড়ান্ত ফলাফল পাওয়া যাবে এই সপ্তাহের শেষ নাগাদ৷ তবে এখন পর্যন্ত যা অবস্থা তাতে কার্যত ভৌগোলিকভাবে দুইভাগে বিভক্ত ইরাক৷ দক্ষিণে আধিপত্য মালিকি জোটের আর আলাউয়ির জোট শীর্ষে আছে ইরাকের উত্তরাঞ্চলে৷

ইরাকের রাষ্ট্রীয় টেলিভিশন নির্বাচনের সর্বশেষ যে খবর জানিয়েছে তাতে, জোটগুলোর মধ্যে হাড্ডাহাড্ডি লড়াই এখনো চলছে৷ যদিও ইরাকের গুরুত্বপূর্ণ এলাকা বাগদাদে শীর্ষে মালিকির জোট৷ ইরাক সংসদের ৩২৫টি আসনের মধ্যে ৬৮ টি আসনই বাগদাদের দখলে৷ শুধু তাই নয়, বাগদাদের দক্ষিণের প্রদেশগুলোতেও এগিয়ে আছেন মালিকি৷ আর তাই এই জয় প্রধানমন্ত্রী পদে বহাল থাকতে সহায়তা করবে মালিকিকে, এমনটাই মত বিশেষজ্ঞদের৷

অন্যদিকে ইয়াদ আলাউয়ির জোট উত্তরের প্রদেশ নিনেভাহ, দিয়ালা এবং সালেহ আল-দ্বীনসহ আল-আনবারে ভাল অবস্থানে রয়েছে৷ শিয়া ধর্মাবলম্বীদের জোট ইরাকি ন্যাশনাল অ্যালায়েন্সও ভালো অবস্থানে রয়েছে৷ বিশেষত যেসব এলাকায় নুরি আল-মালিকির জোট এগিয়ে সেখানে দ্বিতীয় অবস্থানে দেখা যাচ্ছে তাদের৷ তবে এই জোট যদি আলাউয়ির সঙ্গে মিলে যায় তাহলে বিপদের আশঙ্কা রয়েছে মালিকীর জন্য৷ কারণ ন্যাশনাল অ্যালায়েন্সের অনেকের সঙ্গেই খুব একটা ভালো সম্পর্ক নেই মালিকির৷

ইরাকের নির্বাচন নিয়ে এখন যে বিষয়টি আলোচনায় সেটা হচ্ছে ভোট গণনার ধীরগতি৷ দেশটির নির্বাচন কমিশনের যে সময়ে ভোটের ফলাফল ঘোষণা করার কথা ছিলো ভোট গণনায় তার চেয়ে অনেক বেশি সময় লেগে যাচ্ছে৷ ফলে খানিকটা অস্বস্তিতে আছে বিরোধী পক্ষ৷ কারণ ইতিমধ্যেই ভোট কারচুপির অভিযোগ উঠেছে৷ শোনা যাচ্ছে, মালিকিকে আবারো জিতিয়ে দিতে নির্বাচনে কারচুপি করা হয়েছে৷ নির্বাচন কমিশনেও জমা পড়েছে কারচুপির অসংখ্য অভিযোগ৷

প্রতিবেদক: আরাফাতুল ইসলাম

সম্পাদনা: সুপ্রিয় বন্দোপাধ্যায়

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়