1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

জার্মানি ইউরোপ

ইউরো এলাকায় স্থায়ী উন্নতির আশা

শিল্পক্ষেত্রে উন্নতি, উৎপাদন-বৃদ্ধি, মূল্যস্ফীতি কমার লক্ষণ – এমন সব ইতিবাচক প্রবণতার ফলে ইউরো এলাকায় আবার আশার আলো দেখা যাচ্ছে৷ ইউরোপীয় কেন্দ্রীয় ব্যাংকও চলতি বছরেই স্থায়ী উন্নতির আশা করছে৷

একাধিক সূত্র বলছে, ইউরোজোন অবশেষে মন্দা কাটিয়ে উঠছে৷ সোমবার প্রকাশিত তথ্য অনুযায়ী বিনিয়োগকারীদের আস্থার সূচক বেড়ে গেছে৷ সেইসঙ্গে প্রায় ১৮ মাস পর শিল্পক্ষেত্রে আবার সম্প্রসারণ ঘটছে৷ আগামী কয়েক মাসে মূল্যস্ফীতি কমার স্পষ্ট লক্ষণও দেখা যাচ্ছে৷ এগুলি অবশ্যই সুখবর৷

তবে মনে রাখতে হবে, ইদানীং এমন অনেক তথ্য পরিসংখ্যান প্রকাশিত হয়েছে, যেগুলি কিছুটা পরস্পরবিরোধী৷ কখনও আশার আলো দেখা যাচ্ছে, কখনো আবার নেতিবাচক চিত্র ফুটে উঠছে৷ যেমন জুন মাসেই ইউরো এলাকায় বিক্রির হার শূন্য দশমিক পাঁচ শতাংশ কমে গেছে৷ তবে যে প্রতিষ্ঠানের উপর আস্থা বেড়ে চলেছে, সেই ইউরোপীয় কেন্দ্রীয় ব্যাংক-এর মতে, চলতি বছরের শেষ দিকে পরিস্থিতির স্থায়ী উন্নতি দেখা যাবে৷

Spanien Finanzkrise

আশা জাগলেও বেকারত্ব কিন্তু খুব একটা কমছে না

রপ্তানি আরও বাড়বে এবং সুদের নিম্ন হার বিনিয়োগে উৎসাহ জোগাবে৷ ইসিবি সুদের হার কম রেখে এ ক্ষেত্রে সক্রিয় ভূমিকা পালন করছে৷ ইসিবি-র এই পূর্বাভাষ যেন সত্য হয়, এমনটাই চাইছে পুঁজিবাজার ও সাধারণ মানুষ৷ কারণ ১৯৯৯ সালে ইউরো চালু হওয়ার পর থেকে দীর্ঘতম মন্দা ও চরম বেকারত্ব থেকে মুক্তি পেতে চাইছে সবাই৷

ইউরো এলাকার সংকটগ্রস্ত দেশগুলি সম্পর্কে কোনো সার্বিক স্পষ্ট চিত্র এখনো দেখা যাচ্ছে না৷ প্রবল চাপের মুখে সংস্কার ও ব্যয় সংকোচ চালিয়ে পরিস্থিতি স্থিতিশীল হয়ে উঠছে ঠিকই, কিন্তু তার সুফল পেতে আরও সময় লাগবে৷ যেমন ইটালির অর্থনীতি চলতি বছরের দ্বিতীয় কোয়ার্টারে শূন্য দশমিক ২ শতাংশ সংকুচিত হয়েছে৷ জিডিপি কমে গেছে ২ শতাংশ৷ তবে ফ্রান্স, ইটালি ও স্পেনে উৎপাদন আবার বাড়তে শুরু করেছে৷ গ্রিস ও স্পেনে বেকারত্বের মারাত্মক হার এখনো উল্লেখযোগ্য হারে কমার কোনো লক্ষণ দেখা যাচ্ছে না৷

ইউরো এলাকার পরিস্থিতি সম্পর্কে কিছু ইতিবাচক ইঙ্গিত পেয়ে পুঁজিবাজার সপ্তাহের শুরুতেই কিছুটা চাঙ্গা হয়ে উঠেছিল বটে, কিন্তু সার্বিকভাবে বিক্রি-বাটা কমে যাবার ফলে সপ্তাহের শুরুতে পুঁজিবাজার আবার অস্থির হয়ে পড়েছিল৷ ইউরোর বিনিময় মূল্যও অনেকটা পড়ে গেছে৷

এসবি/ডিজি (এপি, এএফপি)

নির্বাচিত প্রতিবেদন