1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

ইউরোপ

‘ইউরোপে পপুলিস্টদের এখানেই থামাতে হবে'

প্রথমে ব্রেক্সিট, তারপর ডোনাল্ড ট্রাম্প৷ নির্বাচনে এমন ফলাফলের ধাক্কা সামলাতে ব্যস্ত গোটা বিশ্ব৷ এবার ইউরোপে একের পর এক নির্বাচনে জনমোহিনী ‘পপুলিস্ট'-দের থামানোর আহ্বান জানালেন নেদারল্যান্ডসের প্রধানমন্ত্রী৷

নেদারল্যান্ডসের প্রধানমন্ত্রী মার্ক রুটে সরাসরি ভোটারদের উদ্দেশ্যে বলেন, ইউরোপে ‘পপুলিস্ট'-দের দাপট অবিলম্বে থামাতে হবে৷ তিনি বলেন, ‘‘আমি চাই, প্রথম দেশ হিসেবে নেদারল্যান্ডস এমন ভ্রান্ত ‘পপুলিজম'-র প্রবণতা থামাতে এগিয়ে আসবে৷'' তা না হলে ইউরোপ তাসের ঘরের মতো তাদের মুখে ধসে পড়বে বলে সাবধান করে দেন তিনি৷ নেদারল্যান্ডসের নির্বাচনকে কোয়ার্টার ফাইনাল আখ্যা দিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, এপ্রিল মাসে ফ্রান্সে সেমি ফাইনাল ও সেপ্টেম্বর মাসে জার্মানিতে ফাইনালের আগেই এই কাজ করতে হবে৷

সোমবার রাতে চরম দক্ষিণপন্থি প্রার্থী খেয়ার্ট ভিল্ডার্সের সঙ্গে এক টেলিভিশন বিতর্কে মার্ক রুটে ভোটারদের সামনে নিজের অবস্থান তুলে ধরেন৷ দেশ শাসন করা আর সোফায় বসে বিভিন্ন বিষয়ে টুইট করা সমান নয় বলে প্রতিপক্ষ ভিল্ডার্সকে মনে করিয়ে দেন তিনি৷ উল্লেখ্য, প্রবল ইসলামবিরোধী খেয়ার্ট ভিল্ডার্স ইউরোপীয় ইউনিয়ন থেকে নেদারল্যান্ডসকে বিচ্ছিন্ন করার অঙ্গীকার করছেন৷ মুসলিম ও বিদেশিদের প্রতি তাঁর বিদ্বেষ নিয়ে তাঁর কোনো রাখঢাক নেই৷ অথচ তাঁর মা আংশিকভাবে ইন্দোনেশীয় বংশোদ্ভূত৷ টেলিভিশন বিতর্কে তিনি প্রধানমন্ত্রী রুটেকে ডাচদের নয়, বিদেশিদের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে তুলে ধরেন৷

নেদারল্যান্ডসের নির্বাচনের দিকে আপাতত গোটা বিশ্বের নজর৷ মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে অনেক মিলের কারণে খেয়ার্ট ভিল্ডার্সের উত্থানের সম্ভাবনা বৃহত্তর বার্তা বহন করতে পারে বলে অনেক মহল মনে করছে৷

এদিকে নেদারল্যান্ডসের নির্বাচনে তুরস্কের সঙ্গে সম্পর্কের সাম্প্রতিক অবনতির বিষয়টিও বাড়তি গুরুত্ব পাচ্ছে৷ তুরস্ক নেদারল্যান্ডসের রাষ্ট্রদূতের আঙ্কারায় ফেরার উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে ও একের পর এক শাস্তিমূলক পদক্ষেপ নিয়ে চলেছে৷

এসবি/ডিজি (এএফপি, রয়টার্স)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়