1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

ইইউ-র সভাপতিত্ব পেল সংকটে জর্জরিত গ্রিস

ইউরোপীয় ইউনিয়নের সভাপতিত্ব পেয়েছে গ্রিস৷ অর্থনৈতিকভাবে ইউরোপের সবচেয়ে সংকটাপন্ন দেশটি এ দায়িত্ব পেয়েছে আগামী ছয় মাসের জন্য৷

গ্রিসের আগে এ দায়িত্বে ছিল লিথুয়ানিয়া৷ তবে এবার সভাপতিত্ব পাওয়ায়, ইউরোপীয় ইউনিয়নের উচ্চ পর্যায়ের বৈঠকের জন্য খুব গুরুত্বপূর্ণ ভেন্যুর মর্যাদা পাবে এথেন্স৷ ওদিকে, গ্রিসের রাজধানী শহরটিতে সোমবারই ঘটেছে সবার মনে আতঙ্ক ছড়ানোর মতো ঘটনা৷ সেদিন এথেন্সের জার্মান দূতাবাসে কালাশনিকভ রাইফেলের গুলি চালানো হয়৷ কারা এ হামলার সঙ্গে জড়িত তা জানা যায়নি৷ কোনো সংগঠন এ হামলার দায়িত্ব স্বীকারও করেনি৷ তবে বিশ্লেষকরা মনে করেন, জার্মান দূতাবাসে হামলার পেছনে গ্রিসে সম্প্রতি গড়ে ওঠা জার্মানিবিরোধী মনোভাবের ভূমিকা থাকতে পারে৷ গ্রিসের জনগণের বেশ বড় একটা অংশ মনে করে দেশের অর্থনৈতিক দূরাবস্থাকে ত্বরান্বিত করার জন্য জার্মানি অনেকটাই দায়ী৷

Antonis Samaras Griechenland Premierminister

গ্রিসের প্রধানমন্ত্রী আন্টনিস সামারাস

গ্রিসের ক্ষমতাসীন জোটের জন্যও ইউরোপিয়ান ইউনিয়নের সভাপতিত্ব পাওয়ার খবরটা খুব ভালো সময়ে আসেনি৷ রক্ষণশীল এবং সাম্যবাদী দলের এ জোট জনপ্রিয়তা হারাচ্ছে৷ গত ডিসেম্বরে দুটি গ্রিক সংবাদপত্রের জরিপে দেখা গেছে, জনপ্রিয়তায় এখন বেইলআউটবিরোধী দল সিরজা এবং চরম ডানপন্থি দলগুলো এগিয়ে৷ দলগুলো আসন্ন ইউরোপীয় সংসদ নির্বাচনে এর সুফল পেতে পাবে বলে ধারণা করা হচ্ছে৷

ইউরোপীয় সংসদ নির্বাচন হবে আগামী মে মাসে৷ তার আগেই অবশ্য গ্রিসের প্রধানমন্ত্রী আন্টনিস সামারাস সামগ্রিক পরিস্থিতির উন্নয়নে কিছু বড় কাজ করতে চান৷ দেশে এ মুহূর্তে কর্মক্ষম নাগরিকদের শতকরা ২৭ ভাগই বেকার৷ তাই সামারাস জানিয়েছেন, বেকারত্ব কমানোর জোর চেষ্টা চালাবে তাঁর সরকার৷ তবে দেশের অর্থনীতি চাঙা হলেই কেবল সেটা সম্ভব৷ তাই অর্থনীতি চাঙা করতে সরকার আপাতত সঞ্চয় বৃদ্ধি, প্রবৃদ্ধি এবং অবৈধ অভিবাসন রোধের উদ্যোগকে আরো জোরদার করবে বলেও জানিয়েছেন সামারাস৷

গ্রিসের মতো দেশের জন্য ইউরোপীয় ইউনিয়নের সভাপতিত্ব পাওয়া সম্মানের হলেও, এ দায়িত্বের বোঝাও কিন্তু কম নয়৷ সভাপতিত্বের দায়িত্ব পালনের জন্য ৫০ মিলিয়ন ইউরোর বাজেট রাখা হয়েছে৷ গ্রিসের জন্য অঙ্কটা বিশাল৷ তবে ইউরোপের অপেক্ষাকৃত সমৃদ্ধ দেশগুলোর জন্য অঙ্কটা আবার সামান্যও বটে৷ এর আগে ইউরোপিয়ান ইউনিয়নের সভাপতিত্ব করার মতো এমন একটা গুরুদায়িত্ব পাওয়া আর কোনো দেশের জন্য এত কম টাকা বরাদ্দ করা হয়নি৷

এসিবি/ডিজি (এএফপি, ডিপিএ)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়