1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

‘আরেকটা যুদ্ধাপরাধী গেল!', 'জন্মদিনে সেরা উপহার’

সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরী ওরফে সাকা চৌধুরীর মৃত্যুদণ্ড সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগেও বহাল থাকল৷ চলুন দেখে নেয়া যাক, এ নিয়ে সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে, এই যেমন ফেসবুক এবং টুইটারে কে কী বলছেন৷

টুইটারে আজ সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর ফাঁসির আদেশ বহাল থাকার খবরই প্রাধান্য পেয়েছে৷

একজন সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরির উদ্দেশ্যে লিখেছেন, ‘‘আপনার কৃতকর্মের ফল ভোগ করা উচিত৷''

একাত্তরে মানবতাবিরোধী অপরাধের প্রমাণিত অভিযোগে বিএনপি নেতা সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর মৃত্যুদণ্ড বহাল থাকায় অনেকেই উচ্ছ্বসিত৷ আনন্দিত একজন স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলার ভঙ্গিতে বলছেন, ‘‘আরেকটা যুদ্ধাপরাধী গেল!''

কেউ কেউ তো কাচ্চি বিরিয়ানির দাওয়াত দিচ্ছেন বন্ধুদের!

কারো কারো কাছে আবার সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর মতো ব্যক্তির ফাঁসির আদেশটা ‘জন্মদিনের সেরা উপহার'-এর মতো৷

শুধু যুদ্ধাপরাধ নয়, সংসদে, জনসভায়, সাক্ষাৎকারে অশ্লীল ইঙ্গিতবহ কথাবার্তা বলে বাংলাদেশের রাজনীতিতে ‘কুরুচি' ছড়ানোর অভিযোগও আছে সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর বিরুদ্ধে৷

আমার ব্লগে রাজনৈতিক অঙ্গনে ‘সাকা চৌধুরী' নামে পরিচিত এই রাজনীতিবিদ কখন, কী প্রসঙ্গে কী কী বলে পাদপ্রদীপের আলোয় থেকেছেন, তা তুলে ধরেছেন একজন৷ সেখানে বাংলাদেশের সংবিধান, ‘সুশীল সমাজ', আওয়ামী লীগ থেকে শুরু করে অনেক বিষয়েই আপত্তিকর, আদিরসাত্মক এবং ইঙ্গিতপূর্ণ বক্তব্যের উল্লেখ রয়েছে৷ এমনকি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ব্যক্তিগতভাবে হেয়প্রতিপন্ন করার মতো বক্তব্যেরও উল্লেখ আছে ‘সাকা চৌধুরীর বিভিন্ন সময়ে বলা বিখ্যাত কুখ্যাত উক্তিসমূহ' শিরোনামের ব্লগপোস্টটিতে

সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরী কারাগারে৷ রায় কার্যকর হলে ফাঁসিও হবে তার৷ তারপরও তাকে নিয়ে আতঙ্ক কাটেনি অনেকের৷ টুইটারে এমন একটি খবর শেয়ার করা হয়েছে, যেখানে বলা হচ্ছে, সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর নির্বাচনী এলাকা রাউজানে ‘‘সাকা নেই কিন্তু ভয় ষোল আনা''৷

কয়েকদিন ধরেই ২৯শে জুলাইয়ের অপেক্ষায় ছিলেন বাংলাদেশের অধিকাংশ মানুষ৷ মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের অনেকেই চাইছিলেন ‘সাকা'-র মৃত্যুদণ্ড বহাল থাকুক৷

ফাঁসির আদেশ বহাল থাকায় তাঁরা সবাই খুশি৷ গণজাগরণ মঞ্চের মুখপাত্র ইমরান এইচ সরকার ফেসবুকে লিখেছেন, ‘‘যুদ্ধাপরাধী সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর সর্বোচ্চ শাস্তির এই রায়ের মধ্য দিয়ে অপশক্তির ধ্বংসাত্মক অপরাজনীতির বিনাশ হলো৷ সত্য ও সুন্দরের জয় হলো৷ ন্যায়বিচার নিশ্চিত হলো, যা আইনের শাসন প্রতিষ্ঠার মাইলফলক হয়ে থাকবে৷ আমরা প্রত্যাশা করি, আর কোনো কালক্ষেপণ না করে অবিলম্বে মানুষরূপী এই বর্বর মানবতাবিরোধী অপরাধীর ফাঁসি কার্যকর করে জাতিকে দায়মুক্ত করা হবে৷''

তবে ফাঁসির আদেশ কার্যকর হওয়া এখনো নিশ্চিত হয়নি৷ সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর আইনজীবী জানিয়েছেন, সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগের রায়ের বিরুদ্ধেও রিভিউ পিটিশন করা হবে৷

সংকলন: আশীষ চক্রবর্ত্তী

সম্পাদনা: দেবারতি গুহ

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়