1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

জার্মানি ইউরোপ

আরও নিষেধাজ্ঞার মুখেও অটল রাশিয়া

ইউক্রেনের পূর্বে রুশপন্থিদের তৎপরতার জের ধরে রাশিয়ার উপর আন্তর্জাতিক চাপ বেড়ে চলেছে৷ ওদিকে রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুটিন দেশে প্রতিরক্ষা সরঞ্জাম আমদানির ঘাটতি পূরণে বিকল্প ব্যবস্থার কথা বলেছেন৷

default

নিষেধাজ্ঞার ফলে প্রতিরক্ষা সরঞ্জামের রপ্তানি বন্ধ হলেও কোনো সমস্যা হবে না: পুটিন

ইউক্রেনের পূর্বাঞ্চলে উত্তেজনা বেড়েই চলেছে৷ অজ্ঞাতপরিচয় আততায়ীরা খারকিভ শহরের মেয়রের পিঠে গুলি করেছে৷ অন্যান্য শহরেও অরাজকতার খবর পাওয়া যাচ্ছে৷ রুশপন্থিরা আরও এলাকা দখলের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে৷ ইউক্রেনের সরকার দেশের পূর্বাঞ্চলে রুশপন্থিদের সন্ত্রাসবাদী হিসেবে চিহ্নিত করে তাদের বিরুদ্ধে অভিযান চালিয়ে যাচ্ছে৷ সীমান্তের ওপারে রাশিয়ার সৈন্যদের তৎপরতাও বেড়ে চলেছে৷ উলটে ইউক্রেনের দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলে ইউক্রেনীয় বাহিনীর অভিযানের সমালোচনা করেছে রাশিয়া৷

ইউরোপীয় নিরাপত্তা ও সহযোগিতা সংগঠন ওএসসিই-র আটজন অপহৃত পর্যবেক্ষকের মুক্তির প্রচেষ্টাও অব্যাহত রয়েছে৷ স্লাভিয়ানস্ক শহরে রবিবার তাঁদের যুদ্ধবন্দি হিসাবে পেশ করা হয়েছে৷

জার্মানি তাঁদের মুক্তির জন্য রাশিয়ার হস্তক্ষেপের আহ্বান জানিয়েছে৷ জার্মান চ্যান্সেলর আঙ্গেলা ম্যার্কেলের মুখপাত্র অপহরণের নিন্দা করে অবিলম্বে আন্তর্জাতিক পর্যবেক্ষকদের মুক্তির দাবি জানিয়েছেন৷ রুশ প্রশাসনের উদ্দেশ্যে তিনি এ ক্ষেত্রে সক্রিয় ভূমিকা নেওয়ার ডাক দিয়েছেন৷

এদিকে রাশিয়ার উপর চাপ বাড়াতে মার্কিন প্রশাসন সে দেশের উপর আরও কিছু নিষেধাজ্ঞা চাপাতে চলেছে৷ এর আওতায় রুশ সরকারের আরও সাতজন ব্যক্তি ও ১৭টি কোম্পানি কালো তালিকায় স্থান পেয়েছে৷ তাছাড়া উচ্চ প্রযুক্তির প্রতিরক্ষা সরঞ্জাম রপ্তানিও বন্ধ করা হবে৷ ইউরোপীয় ইউনিয়নও রাশিয়ার উপর নিষেধাজ্ঞা আরও কড়া করার বিষয়ে আলোচনা করছে৷ সোমবারই আরো ১৫ জন রুশ কর্মকর্তার উপর নিষেধাজ্ঞা সম্পর্কে প্রাথমিক ঐকমত্য অর্জিত হয়েছে৷ জি-সেভেন গোষ্ঠী রাশিয়ার বিরুদ্ধে যৌথ পদক্ষেপের অঙ্গীকার করেছে৷ তবে সামগ্রিকভাবে রাশিয়ার অর্থনীতিকে দুর্বল করার বিষয়ে বেশ সংশয় দেখা যাচ্ছে৷ কারণ এর ফলে বিশ্ব অর্থনীতিতে আবার মন্দার আশঙ্কা উড়িয়ে দিতে পারছেন না বিশেষজ্ঞরা৷

যাবতীয় আন্তর্জাতিক চাপ সত্ত্বেও রাশিয়া কিন্তু তার অবস্থানে অনড় রয়েছে৷ রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুটিন বলেছেন, নিষেধাজ্ঞার ফলে প্রতিরক্ষা সরঞ্জামের রপ্তানি বন্ধ হলেও কোনো সমস্যা হবে না৷ বিকল্পের ব্যবস্থা করা সম্ভব হবে৷ উল্লেখ্য, বিশেষ করে ইউক্রেন থেকে রপ্তানি কমে যাওয়ায় রাশিয়ার সমস্যা হচ্ছে৷

এসবি/ডিজি (রয়টার্স, এএফপি)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়