1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

জার্মানি ইউরোপ

‘আমি তোমাদের মেয়ে চাই না, সম্পর্ক চাই'

কথাটা জিম্বাবোয়ের প্রেসিডেন্ট রবার্ট মুগাবের৷ তাঁর নিজের দেশে নিযুক্ত হওয়া ফ্রান্সের নতুন রাষ্ট্রদূতকে উদ্দেশ্য করে এমনই মন্তব্য করেন ৩৩ বছর ধরে ক্ষমতায় থাকা মুগাবে৷ সেসময় জার্মানি ও হল্যান্ডের রাষ্ট্রদূতও উপস্থিত ছিলেন৷

২০০২ সালে কারচুপির মাধ্যমে নির্বাচনে জিতে ক্ষমতায় থেকে যাওয়ার কারণে মুগাবে, তাঁর সহকর্মী এবং তাঁদের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট কোম্পানির সম্পদ বাজেয়াপ্ত ও তাঁদের উপর ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা জারি করে ইউরোপীয় ইউনিয়ন৷

এই প্রেক্ষিতে সম্প্রতি রাষ্ট্রদূতদের সঙ্গে বৈঠকের সময় মুগাবে বলেন, ‘‘আমরা ফ্রান্সে যেতে চাই৷ আমি তোমাদের মেয়ে চাই না৷ আমি রোমান্টিকতার উদ্দেশ্যে ফান্সে যেতে চাই না৷ আমি আমাদের মধ্যে সম্পর্কের উন্নয়ন করতে চাই৷''

চলতি বছর বেশ কিছু নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করে নেয় ইইউ৷ তবে সেটা পুরোপুরি প্রত্যাহার করা হোক, সেটা চান মুগাবে৷ তিনি বলেন, ‘‘আমরা অর্থনৈতিক নিষেধাজ্ঞার প্রত্যাহার চাই, কারণ আমরা ইউরোপে গরুর মাংস রপ্তানি করতে চাই৷ চলুন আমরা বাণিজ্যিক সম্পর্ক গড়ে তুলি৷ আমাদের ফুল নেদারল্যান্ডের বাজারে বিক্রি করার সুযোগ দিন৷ আমাদের সবজি রপ্তানির সুযোগ দিন৷ যতদিন নিষেধাজ্ঞা থাকবে ততদিন এগুলো সম্ভব না৷''

উল্লেখ্য, ৩৩ বছরের শাসনামলে প্রথম সাত বছর প্রধানমন্ত্রী ছিলেন মুগাবে৷ এরপর ২৬ বছর ধরে প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন ৮৯ বছর বয়সি রবার্ট মুগাবে৷ সর্বশেষ গত জুলাই মাসে অনুষ্ঠিত নির্বাচনেও জয়লাভ করেন তিনি৷ যদিও ইইউ ও যুক্তরাষ্ট্র সেই নির্বাচন নিরপেক্ষ হয়নি বলে রায় দিয়েছে৷

জেডএইচ/ডিজি (এএফপি)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়