1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

সমাজ সংস্কৃতি

আমলাতান্ত্রিক লাল ফিতায় ধরা ম্যাডোনার ‘হার্ড ক্যান্ডি’

সুঠাম দেহ ধরে রাখতে শারীরিক কলা-কৌশলের প্রতি ম্যাডোনার ঝোঁক ইতিমধ্যে বেশ আলোচিত৷ তবে শুধু নিজের দেহই নয়, বরং ভক্তদের দেহ গঠনেও মনোযোগী তিনি৷ কিন্তু ম্যাডোনার ‘হার্ড ক্যান্ডি’ও ঝুলে গেছে আমলাতান্ত্রিকতার লাল ফিতায়৷

পপ, তারকা, আমলাতান্ত্রিক, লাল ফিতা, ধরা, ম্যাডোনা, ‘হার্ড ক্যান্ডি’Madonna, Berlin, Sticky, Sweet, performs, stage, German concert

পপ তারকা ম্যাডোনা

বিশ্বের বিভিন্ন দেশে ব্যায়ামাগার গড়ে তোলার উদ্যোগ নিয়ে মাঠে নেমেছেন ম্যাডোনা৷ ইতিমধ্যে মেক্সিকোর রাজধানীতে উদ্বোধন করেছেন বিলাসবহুল শরীর চর্চা কেন্দ্র ‘হার্ড ক্যান্ডি'৷ ২০০৮ সালে জনপ্রিয়তার শীর্ষে থাকা তাঁর ১১তম স্টুডিও অ্যালবাম থেকে ‘হার্ড ক্যান্ডি' নাম দিয়েছেন তাঁর ব্যায়ামাগারের৷ এ সম্পর্কে ম্যাডোনা বললেন, ‘‘এটি একটি যৌন আবেদনময়ী নাম৷ এটি আপনাদের বেশ আনন্দ দেবে এবং কল্পনার জগতে যতোটা শক্তি পাওয়া সম্ভব সবটুকুই পাবেন৷'' উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত কিছু সংখ্যক সদস্যকে ম্যাডোনা দিলেন ছোটখাটো নাচের তালিম৷

বিশ্বের বিভিন্ন দেশে আরো অনেকগুলো শরীর চর্চা কেন্দ্র খোলার পরিকল্পনা রয়েছে ৫২ বছর বয়সি এই সংগীত তারকার৷ তবে প্রথম কেন্দ্রটির জন্য মেক্সিকো সিটিকে বেছে নেওয়ার কারণ সম্পর্কে তিনি বললেন, এই শহরের মানুষদের উদ্যম তাঁর খুব পছন্দ৷ আধুনিক ডিজাইন, আসবাবপত্র আর যন্ত্রপাতি দিয়ে সাজানো হয়েছে তিন হাজার বর্গমিটার আয়তনের জিমনেসিয়ামটি৷ এখানে নিয়মিত শরীর চর্চা করার জন্য সদস্যদের দিতে হবে মাসিক দুই হাজার পেসো যা ১০৩ ডলারের সমান৷ এছাড়া এককালীন অন্তর্ভুক্তি ফি ধরা হয়েছে ১০ হাজার ৪০০ পেসো৷

তবে আয়োজন যতোটাই সুন্দর হোক না কেন, মেক্সিকোর আমলাতান্ত্রিকতার বেড়াজালে আটকে গেছে ম্যাডোনার হার্ড ক্যান্ডি৷ হয়তো লাল ফিতার বাঁধনে আটকে থাকতে হবে বেশ কিছু দিন৷ বুধবার মেক্সিকো সিটির মিগুয়েল হিডেলগো বারের প্রধান ডেমেট্রিও সোডি জানালেন, ‘‘হার্ড ক্যান্ডি জিমের জন্য এবং গাড়ি রাখার জন্য প্রয়োজনীয় ভূমি ব্যবহারের অনুমতি এখনও মেলেনি৷ শুধুমাত্র উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের জন্য বিশেষ অনুমতি দেওয়া হয়েছিল৷ কিন্তু আসলে উদ্বোধন করার আগেই সবার উচিত প্রয়োজনীয় সব কাগজপত্র ঠিক করে নেওয়া৷''

প্রতিবেদন: হোসাইন আব্দুল হাই

সম্পাদনা: জাহিদুল হক

নির্বাচিত প্রতিবেদন

ইন্টারনেট লিংক