1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

পাঠক ভাবনা

আঙ্গেলা ম্যার্কেলকে জন্মদিনের শুভেচ্ছা

পাঠক সুভাষ চক্রবর্তী লিখেছেন, ‘‘জার্মান চ্যান্সেলর আঙ্গেলা ম্যার্কেলের জন্মদিনের অনেক অনেক শুভেচ্ছা রইলো৷ জার্মান দল তাঁদের প্রিয় চ্যান্সেলরকে তাঁর ৬০তম জন্মদিনকে বিশ্বকাপ জয়ের উপহার দিয়ে স্মরণীয় করে রাখলো৷''

সুভাষ চক্রবর্তীর পরে বক্তব্য এরকম.....‘‘বিশ্বকাপ ফুটবলে জার্মানির অসাধারণ সাফল্যের খবরটি এখনো একেবারে তরতাজা, মেতে উঠেছে সারা জার্মানি বাঁধনহারা আনন্দে৷ কিন্তু এরই মধ্যে ডয়চে ভেলের ওয়েবসাইটে ‘আর্জেন্টিনাকে কটাক্ষ করে নাচ, জার্মানিতেই তুমুল সমালোচনা' – শীর্ষক প্রতিবেদন পড়ে মনটা খুবই বিষণ্ণ হয়ে গেল৷ জার্মানদের সংস্কৃতি, আচার ব্যবহার, সৌজন্য বোধের যে সুনাম বিশ্বজোড়া, তা কি আনন্দের বন্যায় সেই কয়েকজন খেলোয়াড় ভুলে গেল? ''

‘‘গতকালের ওয়েবসাইটে ছয় জার্মান ফুটবলারের আর্জেন্টিনাকে কটাক্ষ করে নাচের খবর দেখে মনটা যেমন খুবই বিষণ্ণ হয়ে গিয়েছিল, আজ সকালে স্থানীয় সংবাদপত্রে একটি খবর দেখে খুব ভালো লাগলো৷ বিশ্বকাপ ফুটবল বিজয়ী জার্মান দলের খেলোয়াড় মেসুত ওজিল ব্রাজিলের ২৩জন গরীব শিশুদের চিকিত্সার জন্য নিজের পুরস্কার পাওয়া ২৪ কোটি টাকা দান করেছেন৷ ওজিলই সম্ভবত দুনিয়ার প্রথম ফুটবলার যে এই রকম বড় রকমের অর্থ গরিবের জন্য দান করেছেন৷ ওজিলের এই মহানুভবতার নজির জার্মান ফুটবলকে আরও গর্বিত করল৷'' সুভাষ চক্রবর্তীর পাঠানো দুটো ই-মেলই এখানে হুবহু তুলে দেওয়া হলো৷

পরের ই-মেলে পাঠক বন্ধু হান্নান বেশ আগেভাগেই ঈদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন৷ তিনি লিখেছেন,

‘‘ডয়চে ভেলের সকল শুভানুধ্যায়ীদের জানাই ঈদ মোবারক, মুসলিমদের বছরে সবচেয়ে বড় দুটি উৎসব ঈদুল ফিতর ও ঈদুল আজহা প্রতিবছর আসে খুশির বার্তা নিয়ে৷ শুধু ধর্মীয় উৎসব নয়, ঈদ আমাদের সাম্য ও ভ্রাতৃত্বের প্রতীক৷ দুটি ঈদ আমাদের জীবনে নতুন আশা ও স্বপ্ন নিয়ে এগিয়ে আসে৷ বিশ্বের সমগ্র জাতি উৎসবমুখর পরিবেশে ঈদ পালন করে থাকে৷ ঈদ আমাদেরকে শিক্ষা দেয় অসহায়, দুস্থ, এতিম, অনাথদের সাথে ঈদের আনন্দকে ভাগাভাগি করে নেয়া৷ যাতে করে ধনী-গরিব সকলে সমানভাবে ঈদ পালন করতে পারি৷ ঈদকে আমরা উদযাপন করবো যথাযথ মর্যাদায়৷ সকল কালিমা আর কলুষতাকে ধুয়ে মুছে সাফ করে দেবো৷ হিংসা বিদ্বেষ ভুলে পরস্পর প্রীতির বন্ধনে আবদ্ধ হবো৷'' ডা এস এম এ হান্নান, হরিপুর, চাটমোহর, পাবনা থেকে পাঠিয়েছেন৷

বিশ্বকাপের উপর নানা ছবি দেখে ও খেলোয়াড়দের নানা মন্তব্য পড়ে খুব ভাল লাগল এবং চোখ সার্থক হলো৷ এখানকার সংবাদপত্রে দেখলাম বিশ্বকাপ উপলক্ষ্যে জার্মানিতে বিশেষ ডাকটিকিট প্রকাশিত হয়েছে, দয়া করে আমার ঠিকানায় পাঠাবেন কি? তপতী সরকার, হটুদেওয়ান নাগেরপাড়া, বর্ধমান৷

সংকলন: নুরুননাহার সাত্তার

সম্পাদনা: সঞ্জীব বর্মন

নির্বাচিত প্রতিবেদন