1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

সমাজ সংস্কৃতি

আই টি ক্ষেত্রে সফল ম্যানেজার - আঙ্কে ডোমসাইট

বিল গেট্স, রুপার্ট মার্ডক - এদের নাম কে না জানে, কে না এদের চেনে৷ কিন্তু সফল ব্যবসায়ী হিসেবে এমন কোন মহিলা কী আছেন যাকে আমরা এক নামে চিনি ?

default

নারীদের এগিয়ে আসতে সাহায্য করছে মইক্রোসফ্ট

সফল ব্যবসায়ী হিসেবে খুব বেশি মহিলা এখন পর্যন্ত সেভাবে উঠে আসতে পারেননি৷ এর কারণ কী ? ব্যবসার জগৎ কী সবসময়ই পুরুষদের দখলে থাকবে ? ব্যবসা ক্ষেত্রে মহিলাদের সাফল্য, সুযোগ-সুবিধার অভাব - দীর্ঘদিনের সমস্যা৷

সারা বিশ্বের বড় বড় প্রতিষ্ঠানগুলোর দিকে যদি তাকানো যায় তাহলে দেখা যাবে একেবারে শীর্ষ স্থানে বসে রয়েছেন একজন পুরুষ৷ জার্মানিও এর ব্যতিক্রম নয়৷ গোটা জার্মানিতে যত বড় বড়, নামি-দামি সব প্রতিষ্ঠান আছে সেখানে খুব কম মহিলাই শীর্ষে রয়েছেন৷ জার্মানির একটি গবেষণা প্রতিষ্ঠান তার জরিপে জানিয়েছে, সারা জার্মানিতে নাম করা অন্তত ১০০ প্রতিষ্ঠানে প্রায় ৫২৬ শীর্ষস্থানীয় কর্মকর্তা রয়েছেন তার মধ্যে মাত্র ৭ জন মহিলা৷ অর্থাৎ বড় প্রতিষ্ঠানগুলোতে শীর্ষ স্থানে মাত্র ২০ শতাংশ মহিলা রয়েছেন৷ এসব সংস্থা বিশেষ কোন ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান নয় বরং স্বাস্থ্য-সুরক্ষা এবং সমাজ কল্যাণ মূলক বিষয় নিয়ে কাজ করছে৷

Symbolbild Businesswoman Frauen Beruf Arbeit gespiegelt

যে রাঁধে, সে চুলও বাঁধে

আই টি বা তথ্যপ্রযুক্তির ক্ষেত্রেও মহিলাদের তেমন একটা দেখা যায় না৷ সেখানেও মহিলাদের চেয়ে পুরুষদের পদচারণা বেশি৷ তবে একজন মহিলা এগিয়ে এসেছেন আই টি জগতে৷ তিনি সাফল্যের সঙ্গে এগিয়ে যাচ্ছেন৷ তাঁর নাম আঙ্কে ডোমসাইট৷ মাইক্রোসফ্ট -এর ভাইস প্রেসিডেন্ট আলি ফারামাভি৷ মধ্য প্রাচ্য এবং আফ্রিকার আঞ্চলিক ম্যানেজার তিনি৷ নারীদের আই টি ক্ষেত্রে কাজ করা প্রসঙ্গে তিনি বললেন,

‘‘ তুরস্কে মাইক্রোসফ্ট-এর দপ্তরে যত ম্যানেজার রয়েছে তার অর্ধেকই মহিলা৷ তারা সাফল্যের সঙ্গে এগিয়ে যাচ্ছে৷ তারা তাদের কাজ-কর্মে খুবই পারদর্শী৷ এছাড়া লেবাননের গোটা আই টি ক্ষেত্রের প্রায় ৪০ শতাংশই রয়েছে মহিলাদের অধীনে৷ জর্ডান এবং বাহরাইনেও একই অবস্থা৷ আসল কথা হচ্ছে, কম্পিউটারে কাজ করা বা এ বিষয়ে পারদর্শী হওয়ার অসাধারণ ক্ষমতা রয়েছে মেয়েদের৷ এ ক্ষেত্রে সফলভাবে তারা কাজ করছে অত্যন্ত ট্যালেন্টের সঙ্গে৷ এছাড়া, তুরস্ক, দক্ষিণ আফ্রিকা, ইসরায়েল এমনকি মিশরেও যদি মাইক্রোসফ্ট - এর অফিসগুলোর সঙ্গে তুলনা করা হয় তাহলে দেখা যাবে পশ্চিম ইউরোপের অফিসগুলোর চেয়ে এই অঞ্চলের অফিসগুলোতে মেয়েরা শীর্ষস্থানে রয়েছে৷ তাদের কাজের সুযোগ দেয়া হয়েছে, তারা ভাল করছে, এগিয়ে যাচ্ছে৷''

blonde Frau im Büro, Laptop

আই টি জগতে অত্যন্ত শপল নারীরা

কর্মসংস্থান এবং শ্রম বাজার সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে গবেষণা করছে ইন্সটিটিউট ফুর আরবাইটস মার্কট ফরশুং৷ তারা জানিয়েছে, আগামী বছরগুলোতে জার্মানিতে বিভিন্ন সংস্থায় শীর্ষস্থানে দক্ষ কর্মী পাওয়া কঠিন হবে, সংকট দেখা দেবে৷ মাইক্রোসফ্ট-এর মত বিশাল প্রতিষ্ঠানগুলো আরো আগেই এই সমস্যা আঁচ করতে পেরেছে৷ তাই সেখানে পুরুষদের চেয়ে মহিলাদের দেখা যাচ্ছে বেশি৷ জার্মানিতে মাইক্রোসফট -এ আই টি ম্যানেজার হিসেবে কাজ করছেন আঙ্কে ডোমসাইট৷ তিনি একহাতে সংসার, সন্তান এবং চাকরি সামলাচ্ছেন৷ আঙ্কে বললেন, ‘‘মাইক্রোসফ্ট যা চেষ্টা করছে তা হল মহিলাদের শীর্ষস্থানে নিয়ে আসা৷ শুধু অবিবাহিত মহিলা নয়, বিবাহিত, বাচ্চা আছে - এমন কেউই বাদ পড়ছে না৷ কারণ হল - একজন মহিলার স্বামী আছে, সন্তান আছে- সেটা খুবই স্বাভাবিকভাবে নিয়েছে মাইক্রোসফ্ট৷ অন্য আরেকটি দিক হল - আই টি বিষয় নিয়ে কাজ করতে হলে সবসময়ই যে অফিসে আসতে হবে তা কিন্তু নয়৷ বাড়িতে বসেও অনেক কাজ করা যায়৷ প্রয়োজন শুধু প্রযুক্তির৷''

আঙ্কে ডোমসাইটের একটি সন্তান৷ কোন কারণে বেবি সিটার যদি ব্যস্ত থাকে তাহলে বাচ্চাকে দেখাশোনা করেন তিনি৷ সেদিন তিনি বাড়িতেই কাজ করেন৷ অফিসে যান না৷ বাড়িতেই বাচ্চার একটি খেলাঘর রয়েছে৷ মা কাজে ব্যাস্ত থাকে আর বাচ্চা ব্যস্ত থাকে খেলনা নিয়ে৷ আঙ্কে জানালেন, ‘‘বাড়িতেই ঘরের এক কোনায় একটি লেগোব্লক রয়েছে৷ সেখানে আমার বাচ্চা খেলতে পারে৷ আমার ছেলে কিছুক্ষণ পরপর একেকটি জিনিস তৈরি করে এনে আমাকে দেখায়৷ আমি খুশি হয়ে বলি, ‘‘বাহ, কি সুন্দর'' ! ব্যাস, ছেলে আবার ব্যস্ত হয়ে পড়ে তার খেলনা নিয়ে৷ আমি ব্যস্ত হয়ে যাই আমার কাজ নিয়ে৷''

junge Frau mit Laptop

কাজ করতে সবসময়ই কি অফিসে যেতে হবে ?

সব চেয়ে বড় সত্য হল এতদূর আসতে আঙ্কেকে অনেক কষ্ট করতে হয়েছে৷ কোন কিছুই সহজে তাঁর কাছে আসেনি৷ এর পেছনে ছিল, সময়, অধ্যাবসায় আর সাধনা৷ আজ তিনি অত্যন্ত সফল একজন নারী৷ সাফল্যের দরজা একের পর এক উন্মুক্ত হচ্ছে তাঁর সামনে৷ তিনি বললেন, ‘‘ এর মূল কারণ হল ছোটবেলায় আমি কখনোই শুনিনি ‘মেয়েরা এ ধরণের কাজ করে না'৷ আমি শিখেছি এবং দেখেছি, প্রতিটি মেয়েই একসময় বড় হয়, কাজ করে, বিয়ে করে, তাদের বাচ্চা হচ্ছে, তারা ভাল আছে৷ আমি সবই করছি৷ আমার কাছে অবিশ্বাস্য লাগে যখন আমি শুনি, একজন মায়ের সবসময়ই উচিৎ বাচ্চাদের সঙ্গে বাড়িতে বসে থাকা৷ কারণ কিন্ডারগার্টেন নাকি বাচ্চাদের অসামাজিক করে তোলে৷''

জার্মানির আইনে নারী-পুরুষের সমানাধিকারের স্পষ্ট উল্লেখ রয়েছে৷ কিন্তু তারপরেও শীর্ষ স্থানে মহিলাদের তেমনভাবে দেখা যাচ্ছে না৷ জার্মানির ডয়চে টেলিকম কোম্পানি অবশ্য সিদ্ধান্ত নিয়েছে মহিলাদের শীর্ষস্থানে অধিষ্ঠিত হওয়ার সুযোগ দেওয়া হবে৷

Symbolbild Frauen im Büro / gutes Verhältnis Chef und Mitarbeiter

নারীর এগিয়ে চলায় পুরুষের সহযোগিতা কাম্য, প্রয়োজনীয়

সম্প্রতি ডয়েচে টেলিকমের এক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়৷ সেখানে দেখা যায় শীর্ষস্থানে কোন মহিলা নেই, শুধুই পুরুষ৷ এতে কিছুটা বিরক্তি প্রকাশ করেন জার্মান রাজনীতিকরা৷ আইনে পরিস্কারভাবে উল্লেখ থাকলেও তা যথাযথভাবে পালন করা হচ্ছে না৷

নরওয়ে এদিক থেকে সবচেয়ে এগিয়ে রয়েছে৷ সেখানে কর্মস্থলে মহিলাদের জন্য রয়েছে বিশেষ কোটা ব্যবস্থা৷ এরপর রয়েছে যথাক্রমে নেদারল্যান্ডস, বেলজিয়াম, ফ্রান্স, স্পেন, অস্ট্রিয়া, ফিনল্যান্ড এবং সুইডেন৷ এই দেশগুলোও কোটা ব্যবস্থার দিকে এগিয়ে যাচ্ছে৷

যুক্তি দেখানো হচ্ছে, যে সব সংস্থায় নারী এবং পুরুষ একই ধরণের পারিশ্রমিকের বিনিময়ে একই ধরণের দায়িত্ব পালন করে - সে সব কোম্পানির সাফল্য তুলনামূলকভাবে অনেক বেশি৷ সেসব সংস্থায় কাজের গুণগত মানও বেশ ভাল৷ প্রতিযোগিতা সেখানে ইতিবাচক ভূমিকা পালন করে৷

সেই তুলনায় জার্মানি কিছুটা পিছিয়ে রয়েছে এ ক্ষেত্রে৷ কোটা ব্যবস্থার প্রবর্তন করা হবে কি হবে না - তা নিয়ে এখনো জোর আলোচনা চলছে জার্মানিতে৷

প্রতিবেদক: মারিনা জোয়ারদার

সম্পাদক: আবদুল্লাহ আল-ফারূক

সংশ্লিষ্ট বিষয়