1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

আই ওয়েইওয়েই অপরাধ স্বীকার করেছেন বলে দাবি

চীন কর্তৃপক্ষ গত ১২ দিন ধরে আটক করে রেখেছে শিল্পী এবং মানবাধিকার কর্মী আই ওয়েইওয়েই’কে৷ হংকং এর একটি সংবাদপত্র শুক্রবার জানিয়েছে, তিনি এখন অপরাধ স্বীকার করতে শুরু করেছেন৷

default

আই ওয়েইওয়েই

বেইজিং সমর্থিত ‘ইয়েন ওয়াই পো' সংবাদপত্রটিতে বলা হয়, ৫৩ বছর বয়সি এই শিল্পী নিজের অপরাধ প্রথমে অস্বীকার করলেও এখন তা স্বীকার করে চীনা কর্তৃপক্ষকে সাহায্য করছে৷ সংবাদপত্রটি হংকং থেকে প্রকাশিত হলেও এর তত্ত্বাবধানে রয়েছে চীনা কর্তৃপক্ষ৷ এই পত্রিকায় আরও বলা হয়, পুলিশ জানিয়েছে তাঁদের কাছে এমন অনেক প্রমাণ রয়েছে যে আই ওয়েই ওয়েই কৌশলে বড় অঙ্কের কর ফাঁকি দিয়েছেন৷ সেখানে আরও বলা হয়েছে, আই এই সংক্রান্ত তাঁর কাগজপত্র পুড়িয়ে ফেলেছিলেন৷ এছাড়া তাঁর দু'জন স্ত্রী ছিল এবং তিনি অনলাইনে পর্নোগ্রাফি ছড়াতেন৷

তবে হংকং রেডিও স্টেশন আরটিএইচকে আই'এর বোন গাউ এর উদ্ধৃতি দিয়ে বলেছে, আই ওয়েই ওয়েই এর বিরুদ্ধে আনা এইসব অভিযোগ সঠিক নয়৷ এই ধরণের প্রতিবেদনের মাধ্যমে আই'এর মানসম্মান ক্ষুণ্ণ করা হচ্ছে৷

গত এপ্রিলের ৪ তারিখে আই'কে আটক করা হয়৷ বেইজিং থেকে হংকং এ যাবার জন্য বিমানে আরোহণের সময় থেকে তাঁকে আটক করে সরকার৷ তবে তাঁকে আটকের পর থেকে তাঁর অবস্থান সম্পর্কে কিছু প্রকাশ করেনি সরকার৷ তাঁকে আটক করে রাখায় মানবাধিকার গোষ্ঠীসহ সারা বিশ্বে সমালোচনার ঝড় ওঠে৷ বেইজিং তাঁর সম্পর্কে তেমনভাবে মুখ না খুললেও এটা নিশ্চিত করেছে যে, তাঁর বিরুদ্ধে অর্থনৈতিক অপরাধের অভিযোগে তদন্ত চলছে৷

এদিকে সম্প্রতি বছরগুলোর মধ্যে চীনের মানবাধিকার আন্দোলনের মূর্ত প্রতীক হয়ে উঠেছে আই৷ বেইজিং এর বার্ডস নেস্ট অলিম্পিক স্টেডিয়ামের শৈল্পিক কারুকার্যের পরামর্শদাতা হিসেবে এবং তাঁর বিশ্বমানের শিল্পকর্মের জন্য তিনি আন্তর্জাতিকভাবে খ্যাতি অর্জন করেছেন৷

অন্যদিকে বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, চীনের পুলিশ নি ইয়ুলান নামে আরও একজন প্রখ্যাত মানবাধিকার কর্মী ও আইনজীবীকে আটক করেছে৷ ইয়ুলান এর বয়স ৪৯ বছর৷ সরকার বিরোধী মনোভাব জাগ্রত করার অভিযোগে তাঁকে আটক করা হয়েছে৷

প্রতিবেদন: জান্নাতুল ফেরদৌস

সম্পাদনা: সঞ্জীব বর্মন

নির্বাচিত প্রতিবেদন