1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

অভিবাসী মানুষের সংখ্যা বাড়ছে

সারাবিশ্বে অভিবাসী মানুষের সংখ্যা ক্রমশ বেড়ে চলছে৷ বর্তমান হারে অভিবাসন চলতে থাকলে ২০৫০ সালের মধ্যে অভিবাসী মানুষের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াবে ৪০০ মিলিয়নের ওপরে৷ আন্তর্জাতিক অভিবাসী সংস্থার প্রকাশিত একটি রিপোর্ট তাই বলছে৷

default

আফ্রিকা থেকে স্পেনে এসে চলেছে হাজারো অভিবাসী

রিপোর্টে উল্লেখ করা হয়েছে, ২০১০ সালে সারা বিশ্বে অভিবাসী মানুষের সংখ্যা ২১৪ মিলিয়ন৷ গত বিশ বছরে যে হারে অভিবাসী মানুষের সংখ্যা বেড়েছে সেই হারে যদি আগামী বছরগুলোতেও অভিবাসন প্রক্রিয়া চলতে থাকে, তাহলে ২০৫০ সালের মধ্যে অভিবাসী মানুষের সংখ্যা হবে ৪০৫ মিলিয়ন৷

‘ইন্টারন্যাশনাল অর্গানাইজেশন ফর মাইগ্রেসন' এর পেটার শাৎসার বলেন, অভিবাসনের এই বিস্ফোরণের মোকাবিলা করার জন্য সবদেশের সরকারের এখনও তেমন প্রস্তুতি নেই৷ তিনি বলেন, ‘‘বেশিরভাগ সরকারের এ বিষয়টি নিয়ে সুশৃঙ্খল কোনো পরিকল্পনা নেই৷ এমনকী অভিবাসন নিয়ে আলাদা কোনো মন্ত্রণালয়ও নেই৷''

‘দ্য ফিউচার অফ মাইগ্রেসন: বিল্ডিং ক্যাপাসিটিস ফর চেঞ্জ' রিপোর্টটিতে আশংকা প্রকাশ করা হয়েছে, এই বিষয়টি নিয়ে এখনই না ভাবলে এবং যথাযথ পরিকল্পনা গ্রহণ না করলে অভিবাসন প্রক্রিয়ার এই গতি স্তম্ভিত করে তুলবে বিশ্বকে৷ রিপোর্টটিতে বলা হয়েছে, জনসংখ্যা বৃদ্ধি, অর্থনৈতিক চাহিদা এবং জলবায়ুর পরিবর্তনের কারণে মানুষ এক দেশ থেকে অন্যদেশে যাচ্ছে৷

Griechenland Menschenschmuggel illegale Einwanderer aufgegriffen NO FLASH

২০৫০ সালের মধ্যে অভিবাসী মানুষের সংখ্যা হবে ৪০৫ মিলিয়ন

শাৎসার বলছেন, ২০০৫ থেকে ২০১৪ সালের মধ্যে বিশ্ব শ্রমবাজারে উন্নয়নশীল দেশগুলোর এক দশমিক দুই বিলিয়ন শ্রমিক দেখা যাবে৷ এই সময়ের মধ্যে ধনী দেশগুলোর মানুষের বয়স অনেক বেড়ে যাবে৷ নতুন ধরণের কাজের জন্য যেসব লোকজনের প্রয়োজন হবে তা কেবল ঐসব দেশের মানুষ দ্বারা পুরণ করা সম্ভব হবেনা৷ কিন্তু ধনী দেশগুলো উন্নয়নশীল দেশ থেকে আসা এক বিলিয়নের বেশি মানুষকে চাকরি দিতে পারবেনা৷ কেননা, বেশিরভাগ চাকরি সেই সব দেশের মানুষদের জন্যই বরাদ্দ রাখতে হবে৷

অভিবাসনের এই প্রক্রিয়া উন্নয়নশীল দেশের শ্রমশক্তির ক্ষেত্রে গুরুত্বপুর্ণ ভূমিকা রাখতে পারে৷ রিপোর্টে বলা হয়েছে, উন্নয়নশীল দেশের শ্রমশক্তি ২০০৫ সালে ছিল ২ দশমিক ৪ বিলিয়ন৷ ২০৪০ সালে এই সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াবে ৩ দশমিক ৬ বিলিয়নে৷

অর্থনৈতিক কারণেই যে কেবল মানুষ অভিবাসী হচ্ছে তা নয়৷ রাজনৈতিক আশ্রয় ও পাচার হয়ে আসার কারণেও মানুষ অভিবাসী হচ্ছে৷ জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে পরিবেশগত যে পরিবর্তন ঘটছে তা থেকে মুক্তি পাওয়ার জন্যও কেউ কেউ দেশ ত্যাগ করছেন৷

প্রতিবেদন: জান্নাতুল ফেরদৌস

সম্পাদনা: আব্দুল্লাহ আল-ফারূক

সংশ্লিষ্ট বিষয়