1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

পাঠক ভাবনা

অন্বেষণ কুইজের বিজয়ী হলেন....

১৫-১৭ আগস্ট তারিখের অন্বেষণ কুইজের ফলাফল নির্ধারণ করা হয়েছে৷ কুইজের প্রশ্ন ছিলো, খড়কুটো দিয়ে কী তৈরির উদ্যোগ নেয়া হয়েছে? সঠিক উত্তর বায়োফুয়েল৷ এবার উত্তর এসেছে ৪৭৯টি৷

উত্তরদাতাদের মধ্য থেকে লটারির মাধ্যমে বিজয়ী নির্ধারণ করা হয়েছে৷ এবারের বিজয়ী হয়েছেন তুষার রায় রনি৷

ভাই তুষার রায় রনি, আপনাকে অভিনন্দন! আপনার কাছে বিশেষ অনুরোধ, পুরস্কার পাঠানোর সুবিধার্থে আপনার ঠিকানাটি আমাদের ফেসবুক পাতার মেসেজ বক্সে কিংবা ই-মেলে পাঠিয়ে দিন৷

বন্ধুদের সবার কাছে আমাদের বিশেষ অনুরোধ, আপনাদের বন্ধুদেরও এই প্রতিযোগিতার কথা জানাবেন৷ জানাবেন ডয়চে ভেলের টেলিভিশন অনুষ্ঠান অন্বেষণ এবং ওয়েবসাইটের কথা৷ উল্লেখ্য, অন্বেষণ অনুষ্ঠানের হ্যাশট্যাগও রয়েছে৷ বাংলায় #অন্বেষণ আর ইংরেজিতে #onneshon লিখে ফেসবুক, টুইটারে মন্তব্য করা যাবে৷

এবার মতামত

বগুড়ার পাঠক এমএ বারিক ই-মেলে লিখেছেন, ‘‘একজন মানুষ মরতে বসেছে৷ তার আর কোনোভাবেই বাঁচা সম্ভব নয়৷ এই মুহূর্তে তাকে বাঁচানো সম্ভব একটি উপায়ে, যার নাম অঙ্গ প্রতিস্থাপন৷ এ বিষয়ে ডয়েচে ভেলে একটি প্রতিবেদন থেকে বিশ্বে অঙ্গ প্রতিস্থাপনে কোন দেশ কতটুকু এগিয়ে তার বিস্তারিত জানলাম৷ অত্যন্ত সচেতনতামূলক প্রতিবেদন হয়েছে বলে আমি মনে করি৷ গণসচেতনতাই পারে মৃত্যুর পরেও কোনো মানুষের প্রাণ বাঁচাতে৷ মৃত্যুর পর মৃত ব্যক্তির অঙ্গ রোগীর দেহে প্রতিস্থাপন করলে সেই ব্যক্তি ফিরে পেতে পারে সুস্থ জীবন৷ ফলে তার পুনর্জন্ম ঘটে৷ অথচ দাতা ব্যক্তির কোনো ক্ষতিই হচ্ছে না৷ বরং একটি পরিবারে ফিরে আসে সুখ৷ এই প্রতিবেদনটি করার জন্য আমি আপনাদের আরও একবার ধন্যবাদ জানাচ্ছি৷''

-যাঁরা অন্বেষণ প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়েছেন তাঁদের সবাইকে আন্তরিক ধন্যবাদ৷ আর ওয়েবসাইটের প্রতিবেদন সম্পর্কে মতামত জানানোর জন্য এমএ বারিককে অনেক ধন্যবাদ৷

সংকলন: নুরুননাহার সাত্তার

সম্পাদনা: জাহিদুল হক

নির্বাচিত প্রতিবেদন